এই পোস্টে আপনার জন্য যা যা থাকছেঃ

এইচ এস সি রেজাল্ট ২০২০ | এইচএসসি ২০২০ রেজাল্ট | HSC RESULT 2020

উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষায় অংশগ্রহনকারী শিক্ষার্থীদের এইচ এস সি রেজাল্ট ২০২০ ( HSC Result 2020 ) প্রকাশের সময় হয়েছে। ১৭ ই জুলাই দুপুর ১২ টার পর থেকে সাধারন শিক্ষার্থীদের এইচএসসি ২০২০ রেজাল্ট ও সমমানদের HSC রেজাল্ট ২০২০ শিক্ষাবোর্ডের www.educationboardresults.gov.bd এই সাইট থেকে জানা যাবে।

এইচ এস সি রেজাল্ট ২০২০ কবে দিবে?

স্বাভাবিকভাবে প্রতি বছর ই উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষা শেষ হওয়ার ৬০ দিনের মাথায় ফলাফল প্রকাশ করা হয়। এবারের এইচ এস সি পরীক্ষা 2020 গত ২ রা এপ্রিল শুরু হয়ে তত্বীয় বিষয়ের পরীক্ষা শেষ হয়েছে ১৫ ই এবং ব্যাবহারিক পরীক্ষা শুরু হয় ১৫ ই মে থেকে।

এ বছর সাধারন শিক্ষার্থীদের এইচ এস সি রেজাল্ট ২০২০ ও সমমানের ডিপ্লোমা ইন বিজনেস স্টাডিজ (DIBS) পরীক্ষার ফলাফল আগামী ১৭ ই জুলাই দুপুর ১২ টার পরে প্রকাশিত হবে। যদি তারিখ পরিবর্তন হয় আমরা এখানে আপডেট করে দিব। তাই যে কোন সময় আপনার রেজাল্ট জানতে আপডেট নিয়মিত এ পেজে নজর রাখুন।

এইচএসসি ২০২০ রেজাল্ট আগামী ১৭ ই জুলাই দুপুর ১২ টার পরে প্রকাশিত হবে

এইচ এস সি রেজাল্ট 2020 ( HSC Result 2020 ) ঢাকা শিক্ষা বোর্ড

মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষাবোর্ড বা ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের অধীনে অনুষ্ঠিত উচ্চ মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট পরীক্ষার ফলাফল ( HSC Result 2020 ) জানা যাবে মোবাইল থেকে এসএমএস এর মাধ্যমে এবং ঢাকা বোর্ডের ওয়েবসাইট থেকে।

মোবাইল থেকে এইচ এস সি রেজাল্ট 2020 পাবেন যেভাবেঃ

আপনার মোবাইলের মেসেজ অপশন ওপেন করুন, তারপর টাইপ করুন HSC <স্পেস> DHA <স্পেস> আপনার রোল নাম্বার লিখুন <স্পেস> 2020 লিখে পাঠিয়ে দিন 16222 এই নাম্বারে।

অনলাইন থেকে ঢাকা বোর্ডের এইচ এস সি রেজাল্ট জানতে নিচের লিংকে প্রবেশ করুনঃ

➽ https://ourbd24.com/hsc-exam-result-dhaka-board/

➽ https://dhakaeducationboard.gov.bd

এইচ এস সি ফলাফল ২০২০ চট্টগ্রাম শিক্ষাবোর্ড

বোর্ড অফ ইন্টারমিডিয়েট এন্ড সেকেন্ডারি এডুকেশন, চট্টগ্রাম বা চট্টগ্রাম শিক্ষা বোর্ডের অধীনে অনুষ্ঠিত হায়ার সেকেন্ডারি স্কুল সার্টিফিকেট পরীক্ষার ফলাফল বা এইচ এস সি ফলাফল ২০২০ মার্কশিট নাম্বার সহকারে খুব সহজেই জানতে পারবেন মোবাইল ফোন থেকে মেসেজের মাধ্যমে এবং ইন্টারনেটের মাধ্যমে সরাসরি চট্টগ্রাম শিক্ষাবোর্ডের ওয়েবসাইট থেকে।

মোবাইল থেকে চট্টগ্রাম বোর্ডের এইচ এস সি ফলাফল জানবেন যেভাবেঃ

খুব সহজেই সবার আগে সবচেয়ে দ্রুত ফলাফল পেতে আপনার মোবাইলের মেসেজ অপশনে টাইপ করুন HSC <স্পেস> CHI <স্পেস> আপনার রোল নাম্বার লিখুন <স্পেস> 2020 লিখে মেসেজ টি পাঠিয়ে দিন 16222 এই নাম্বারে।

ইন্টারনেট থেকে চট্টগ্রাম বোর্ডের এইচ এস সি ফলাফল পেতে সরাসরি নিচের লিংকে প্রবেশ করুনঃ

➽ https://ourbd24.com/hsc-exam-result-chittagong-board/

➽ http://hscresult.bise-ctg.gov.bd/hscresult1/individual/

এইচএসসি ফলাফল ২০২০ ( HSC Result 2020 ) কুমিল্লা শিক্ষাবোর্ড

কুমিল্লা মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষাবোর্ডের অধীনে উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষায় অংশগ্রহনকারীগন তাদের কাঙ্খিত এইচএসসি ফলাফল ২০২০ ( HSC Result 2020 ) নাম্বার ও মার্কশিট সহ পাবেন শিক্ষাবোর্ডে মূল ওয়েবসাইট থেকে এবং সরাসরি কুমিল্লা বোর্ডের অফিশিয়াল ওয়েবসাইট থেকেও ফলাফল জানতে পারবেন। এছাড়াও আপনি চাইলে অতি সহজে আপনার মোবাইল থেকে খুব সহজেই একটি ক্ষুদে বার্তার মাধ্যমেই ফলাফল জানতে পারবেন মার্কশিট সহ।

মোবাইল থেকে এইচএসসি ফলাফল ২০২০ জানবেন যেভাবেঃ

কুমিল্লা বোর্ডের উচ্চ মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট পরীক্ষার ফলাফল যদি আপনি মোবাইল থেকে ক্ষুদে বার্তার মাধ্যমে পেতে চান. তাহলে মোবাইলের বার্তা ফানশনে গিয়ে লিখুন HSC < স্পেস > COM < স্পেস > আপনার রোল নাম্বার লিখুন < স্পেস > 2020 লিখে মেসেজ টি পাঠিয়ে দিন 16222 এই নম্বরে।

অনলাইন থেকে কুমিল্লা বোর্ডের এইচএসসি ফলাফল পেতে নিচের ওয়েবসাইটে প্রবেশ করুনঃ

➽ https://ourbd24.com/hsc-exam-result-comilla-education-board/

➽ https://comillaboard.gov.bd/

কুমিল্লা শিক্ষাবোর্ডঃ
ইন্টারমিডিয়েট এবং মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, কুমিল্লা একটি স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠান, প্রধানত দুটি পাবলিক পরীক্ষার (এসএসসি ও এইচএসসি) অধিষ্ঠিত করার জন্য এবং নতুন প্রতিষ্ঠিত অ সরকারী প্রতিষ্ঠানের স্বীকৃতি প্রদানের জন্য। শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এবং সেই প্রতিষ্ঠানের তত্ত্বাবধানে, নিয়ন্ত্রণ ও উন্নয়নের জন্য।
বোর্ডের অধ্যাদেশ অনুযায়ী, পূর্ব পাকিস্তানী মাধ্যমিক ও মাধ্যমিক শিক্ষা অধ্যাদেশ, 1961 (পূর্ব পাকিস্তান অর্ডিন্যান্স নং 3 য় 1 9 61) এবং 196২ সালের সংশোধনী নং XVI এবং 1977 সালের সংবিধানের 13 তম বিধিবিধান অনুসারে এটি সংগঠনের জন্য দায়ী, ইন্টারমিডিয়েট এবং সেকেন্ডারি স্তরের পাবলিক পরীক্ষা এবং শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের নিয়ন্ত্রণ, তত্ত্বাবধান, নিয়ন্ত্রণ ও উন্নয়ন। 196২ সালে পূর্ব পাকিস্তান ইন্টারমিডিয়েট অ্যান্ড সেকেন্ডারি শিক্ষা (সংশোধন) অধ্যাদেশ, 196২ এর অধীনে ইন্টারমিডিয়েট এবং মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড (বিএসইএস), কুমিল্লা প্রতিষ্ঠিত হয়।

HSC রেজাল্ট ২০২০ দিনাজপুর শিক্ষা বোর্ড

সেকেন্ডারি এন্ড ইন্টারমিডিয়েট বা মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষাবোর্ড দিনাজপুর কতৃক পরিচালিত উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষার ফলাফল বা HSC রেজাল্ট ২০২০ প্রকাশিত। দিনাজপুর শিক্ষাবোর্ডের HSC রেজাল্ট জানা যাবে অনলাইন থেকে শিক্ষাবোর্ডের মূল ওয়েবসাইটের পাশাপাশি দিনাজপুর বোর্ডে অফিশিয়াল ওয়েবসাইট থেকে এবং মোবাইল ফোন থেকে এসএমএস এর মাধ্যমে।

মোবাইল থেকে দিনাজপুর বোর্ডের HSC রেজাল্ট ২০২০ দেখবেন যেভাবেঃ

আপনার মোবাইলের মেসেজ ফাংশন টি ওপেন করুন, এবার লিখুন HSC < স্পেস > DIN < স্পেস > আপনার রোল নাম্বার লিখুন < স্পেস > 2020 লিখে মেসেজ টি সেন্ড করুন 16222 এই নাম্বারে।

অনলাইন থেকে দিনাজপুর বোর্ডের HSC রেজাল্ট ২০২০ দেখতে নিচের লিংকে প্রবেশ করুনঃ

➽ https://ourbd24.com/hsc-exam-result-dinajpur-board/

http://dinajpurboard.gov.bd/

দিনাজপুর বোর্ডঃ
ইন্টারমিডিয়েট এবং মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, দিনাজপুর (এখানে বিএসইএস হিসাবে উল্লিখিত) ২006 সালে এটির কার্যক্রম শুরু করে। এটি একটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও ব্যবস্থাপনা পরিচালনার ক্ষেত্রে স্বায়ত্তশাসিত ও স্ব-নিয়ন্ত্রক সংস্থা। দেশে গুণগত ও পরিমাণগত উভয় শিক্ষার জন্য ক্রমবর্ধমান চাহিদার বিবেচনা করে, বিএসইএস এটি শিক্ষামূলক ব্যবস্থার ক্ষেত্রে শ্রেষ্ঠত্বের কেন্দ্র হিসেবে উন্নয়নের চেষ্টা করছে।
বোর্ডের অধ্যাদেশ অনুযায়ী, পূর্ব পাকিস্তান আন্তঃমন্ত্রণালয় ও মাধ্যমিক শিক্ষা অধ্যাদেশ, 1961 (পূর্ব পাকিস্তানের অর্ডিন্যান্স নং 3 য় 1 9 61) এবং এর বিভাগ 3 এ (1), এটি প্রতিষ্ঠান, নিয়ন্ত্রণ, তত্ত্বাবধান, নিয়ন্ত্রণ ও উন্নয়ন জন্য দায়ী ইন্টারমিডিয়েট, সেকেন্ডারি ও জুনিয়র লেভেল পাবলিক পরীক্ষা এবং রংপুর, কুড়িগ্রাম, লালমনিরহাট, গাইবান্ধা, নীলফামারী, দিনাজপুর, ঠাকুরগাঁও ও পঞ্চগরের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান।

HSC রেজাল্ট 2020 যশোর শিক্ষা বোর্ড

যশোর মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষাবোর্ড কতৃক পরিচালিত উচ্চ মাধ্যমিক সার্টফিকেট পরীক্ষা বা HSC রেজাল্ট 2020 নাম্বার মার্কশিট ডাউনলোড করা যাবে শিক্ষাবোর্ডের মূল ওয়েবসাইট থেকে এবং  পাশাপাশি যশোর বোর্ডের অফিশিয়াল ওয়েবসাইট থেকেও। এছাড়া ফলাফল জানা যাবে মোবাইল থেকে ছোট একটি এস এম এস এর মাধ্যমেও।

মোবাইল ফোন থেকে যশোর বোর্ডের HSC রেজাল্ট 2020 জানা যাবে যেভাবেঃ

খুব সহজেই মোবাইলে এসএমএস সার্ভিস ব্যবহার করে রেজাল্ট জানতে চাইলে, প্রথমে আপনার ফোনের মেসেজ অপশনে গিয়ে লিখুন HSC < স্পেস > JES < স্পেস > আপনার রোল নাম্বার লিখুন < স্পেস > 2020 লিখে সেন্ড করুন 16222 এই নম্বরে।

ইন্টারনেট থেকে ফলাফল পেতে নিচের ওয়েবসাইটে প্রবেশ করুনঃ

➽ https://ourbd24.com/hsc-exam-result-jessore-board/

➽ https://www.jessoreboard.gov.bd/result/

যশোর শিক্ষাবোর্ডঃ
যশোর শিক্ষা বোর্ডে স্বাগতম
ইন্টারমিডিয়েট এবং মাধ্যমিকের প্রতিষ্ঠান, নিয়ন্ত্রণ, তত্ত্বাবধান, নিয়ন্ত্রণ ও উন্নয়নের জন্য 1 9 63 সালে খুলনা বিভাগের ইন্টারমিডিয়েট এবং মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড (বিএসইসি), বাংলাদেশ 1 9 63 সালে একটি অধ্যাদেশ (পূর্ব পাকিস্তান অর্ডিন্যান্স নং ২3-এর 1 9 61) দ্বারা প্রতিষ্ঠিত হয়। স্তরের পাবলিক পরীক্ষা এবং শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। তবে অধ্যাদেশ 196২ সালে সংশোধন (196২ সালের 13 ই জুলাই) এবং 1977 সালে (1977 সালের 13 ই জুলাই) সংশোধন করা হয়েছিল।
ড। আব্দুল হক বিসিইএস এর প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান (9.10.1963 থেকে 04.1২.1965), যশোর।
অধ্যাপক মো। আব্দুল আলীম বর্তমানে বর্তমান চেয়ারম্যান (03 নভেম্বর ২013) এবং যশোরের বাইসে ইতিহাসে 31 তম সভাপতি।
যশোর 1963 সালে যাত্রা শুরু করে, তখন মাত্র চারটি (বৃহত্তর) জেলা ছিল, যথা খুলনা, যশোর, বরিশাল ও কুষ্টিয়া যা মোট মাত্র ২0 টি কলেজ এবং 508 টি স্কুল ছিল। একটি নতুন জেলা পটুয়াখালী 1 9 6 9 সালে বরিশাল জেলার সংখ্যা বাড়িয়ে পাঁচ থেকে আলাদা করা হয়। বাংলাদেশের প্রশাসনিক ব্যবস্থার বিকেন্দ্রীকরণের ফলে 1 9 84 সালের জেলায় জেলাসমূহের সংখ্যা 16 (কুষ্টিয়া, চুয়াডাঙ্গা, মেহেরপুর, যশোর, ঝিনাইদহ, নড়াইল, মাগুরা, খুলনা, সাতক্ষীরা, বাগেরহাট, পিরোজপুর, ঝালকাঠি, বরিশাল, পটুয়াখালী, যশোর বোর্ডের অধীনে বরগুনা ও ভোলা)
পরবর্তীকালে বরিশালকে 1993 সালে একটি বিভাগ বানানো হয় এবং পিরোজপুর, ঝালকাঠি, বরিশালের জন্য বার্ষিক বোর্ড প্রতিষ্ঠিত হয়। যশোর, কুষ্টিয়া, চুয়াডাঙ্গা, মেহেরপুর, যশোর, ঝিনাইদহ, নড়াইল, মাগুরা, খুলনা, সাতক্ষীরা এবং বাগেরহাট জেলার মধ্যবর্তী স্থানে বিএসইএস, যশোর জেলার অন্তর্গত পটুয়াখালী, বরগুনা ও ভোলা জেলাসমূহ।
বোর্ডের অধীন সংস্থাসমূহের সংখ্যা: এখন স্বীকৃত স্কুলগুলির ২708 নম্বর আর সাময়িকভাবে স্বীকৃত স্কুলগুলির 160 নম্বর এবং বিএসইএস, যশোরের অধীন 5২3 কলেজের সংখ্যা নেই।
শিক্ষার মাধ্যম: যদিও শিক্ষার মাধ্যম সব স্কুল ও কলেজে ঝিনাইদহ ক্যাডেট কলেজ, মিলিটারি কলেজিয়েট স্কুল খুলনা, আকিজ কলেজিয়েট স্কুল, যশোর ইন্টারন্যাশনাল স্কুল, বি.এফ শাহীন কলেজ, ইসলামাবাদ কলেজিয়েট স্কুল, খুলনা, এবং নৌ অ্যাংকর খুলনা এবং নহর ইংরেজি মাধ্যমিক মাধ্যমিক মাধ্যমিক বিদ্যালয়, মোহাম্মদপুর, মাগুরা বিএসইএস-এর অধীন, যশোর এনসিটিবি পাঠক্রমের ইংরেজি সংস্করণের শিক্ষার্থীদের কাছে শিক্ষা দেয়।

এইচ এস সি রেজাল্ট ২০২০ ( HSC Result 2020 ) রাজশাহী শিক্ষাবোর্ড

বাংলাদেশ মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষাবোর্ডের আওতাভুক্ত রাজশাহী শিক্ষাবোর্ডের এইচ এস সি রেজাল্ট ২০২০ প্রকাশিত হওয়ার সাথে সাথেই আপনি মোবাইল থেকে এস এম এস এর মাধ্যমে এবং অনলাইন থেকে আমাদের ওয়েবসাইটের মাধ্যমে আপনার কাঙ্খিত এইচ এস সি রেজাল্ট ২০২০ ( HSC Result 2020 ) নাম্বার মার্কশিট সহকারে বিস্তারিত জানতে পারবেন।

মুঠোফোন থেকে এসএমএস এর মাধ্যমে রাজশাহী বোর্ডের এইচ এস সি রেজাল্ট ২০২০ দেখুনঃ

ছোট্ট একটি এসএমএস করেই পেয়ে যাবেন আপনার কাঙ্খিত ফলাফল মার্কশিট ডিটেলস। এজন্য প্রথমে আপনার মোবাইলের মেসেজ অপশনে গিয়ে টাইপ করুন HSC < স্পেস > RAJ < স্পেস > আপনার এইচ এস সি রোল নাম্বার লিখুন < স্পেস > 2020 লিখে সেন্ড করুন 16222 এই নাম্বারে।

অনলাইন থেকে রাজশাহী বোর্ডের এইচ এস সি রেজাল্ট ২০২০ পেতে নিচের ওয়েব সাইটে যানঃ

➽ https://ourbd24.com/hsc-exam-result-rajshahi-board/

➽ http://rajshahiboard.gov.bd/

রাজশাহী শিক্ষাবোর্ডঃ
ইন্টারমিডিয়েট এবং মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, রাজশাহী 1961 সালে প্রতিষ্ঠিত হয়, যার ফলে ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের প্রশাসনিক ও শিক্ষাগত নিয়ন্ত্রণ থেকে উত্তর বাংলাদেশ (পূর্বের পূর্ব পাকিস্তান) এর একটি পৃথক শিক্ষা জোন তৈরির মাধ্যম এবং মধ্যবর্তী স্তরে শিক্ষার 7 ই অক্টোবর, 1958 তারিখে রাষ্ট্রপতির ঘোষণার সাথে সাথে গভর্নর (তথাকথিত পূর্ব পাকিস্তানের) 1961 সালের অধ্যাদেশটি প্রণয়ন ও প্রণীত হয়। XXXIII-1961। এই অধ্যাদেশটি ইন্টারমিডিয়েট এবং সেকেন্ডারি শিক্ষা অধ্যাদেশ 1961 নামে অভিহিত করা হয়।
পূর্ব পাকিস্তান ইন্টারমিডিয়েট এবং সেকেন্ডারি এডুকেশন অর্ডিন্যান্স, 1 9 61 নং ২3 তম এবং 196২ সালের সংশোধনী নং XVI এবং 1977 সালের 13 ই জুলাইয়ের মতে, বোর্ড ইন্টারমিডিয়েট এবং মাধ্যমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, নিয়ন্ত্রণ, তত্ত্বাবধান, নিয়ন্ত্রণ ও উন্নয়নের জন্য দায়ী। , এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষায় (পাবলিক এসএলসি এবং এইচএসসি পরীক্ষায়) অধিষ্ঠিত, মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক প্রতিষ্ঠানের উপর নিয়ন্ত্রণ রাখা এবং একটি সুস্থ একাডেমিক বায়ুমন্ডলে শিক্ষার্থী ও শিক্ষকদের আগ্রহের প্রচার। সরকারের একটি গুরুত্বপূর্ণ সংস্থা হিসাবে বোর্ডের উদ্দেশ্য সরকারী নীতিমালার দৃষ্টিভঙ্গিকে যুক্তিসঙ্গতভাবে একাধিক এবং ব্যাপক এবং নির্ধারিত আওতাধীনে তার বাস্তবায়ন নিশ্চিত করার জন্য।

এইচএসসি ২০২০ রেজাল্ট ( HSC Exam Result 2020 ) সিলেট শিক্ষাবোর্ড

সিলেট শিক্ষাবোর্ডের অধীনে অনুষ্ঠিত এবারের উচ্চ মাধ্যমিক স্কুল সার্টফিকেট পরীক্ষায় অংশগ্রহনকারী ছাত্র ছাত্রীদের এইচএসসি ২০২০ রেজাল্ট ( HSC Exam Result 2020 ) কিছুদিনের ভেতরেই প্রকাশিত হতে যাচ্ছে। ফলাফল প্রকাশের দিন দুপুর ১২ টার পর থেকে ছাত্র ছাত্রীরা তাদের কাঙ্খিত উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষার রেজাল্ট মার্কশিট মোবাইল ফোন থেকে এস এম এস এর মাধ্যমে এবং ইন্টারনেট থেকে সিলেট শিক্ষাবোর্ডে অফিসিয়াল ওয়েবসাইট থেকে ডাউনলোড করতে পারবে।

মোবাইল থেকে সিলেট বোর্ডের এইচএসসি ২০২০ রেজাল্ট দেখার নিয়মঃ

সবার আগে সবচেয়ে দ্রুত এবং খুব সহজেই কোন ধরনে ইন্টারনেট ছাড়াই আপনার মোবাইল ফোন থেকে একটি এসএমএস করেই দেখে নিতে পারবেন আপনার এইচএসসি ২০২০ রেজাল্ট। মোবাইলের মেসেজ অপশনে গিয়ে টাইপ করুন HSC < স্পেস > SYL < স্পেস > আপনার এইচএসসি রোল নাম্বার লিখুন < স্পেস > 2020 লিখে সেন্ড করুন 16222 এই নাম্বারে।

অনলাইন থেকে সিলেট বোর্ডের এইচএসসি ২০২০ রেজাল্ট পেতে নিচের ওয়েবসাইটে যানঃ

➽ https://ourbd24.com/hsc-result-sylhet-education-board/

➽ https://sylhetboard.gov.bd/

সিলেট শিক্ষাবোর্ডঃ
সংক্ষিপ্ত বিবরণ
*উদ্দেশ্য
বোর্ডের অধ্যাদেশ অনুযায়ী, পূর্ব পাকিস্তানী মাধ্যমিক ও মাধ্যমিক শিক্ষা অধ্যাদেশ, 1961 (পূর্ব পাকিস্তান অর্ডিন্যান্স নং 3 য় 1 9 61) এবং 196২ সালের সংশোধনী নং XVI এবং 1977 সালের সংবিধানের 13 তম বিধিবিধান অনুসারে এটি সংগঠনের জন্য দায়ী, ইন্টারমিডিয়েট এবং সেকেন্ডারি স্তরের পাবলিক পরীক্ষা এবং শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের নিয়ন্ত্রণ, তত্ত্বাবধান, নিয়ন্ত্রণ ও উন্নয়ন।
*প্রতিষ্ঠার সময়
বোর্ড অফ ইন্টারমিডিয়েট অ্যান্ড সেকেন্ডারি এডুকেশন (বাইসে), সিলেট, 1999 সালে প্রতিষ্ঠিত হয়েছে।
*উদ্দেশ্য এবং ফোকাস
এর উদ্দেশ্য শিক্ষার মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক স্তরের বিশেষভাবে পরীক্ষায় উত্তীর্ণ এবং শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের মান বজায় রাখার জন্য মানসম্মত সেবা প্রদান করা। এই কারণে, এটি প্রক্রিয়াকরণ এবং রেজিস্ট্রেশন, আন্তর্জাতিক প্রমিত শূন্য সিস্টেম, ওয়েবসাইটের মাধ্যমে ফলাফল প্রকাশ এবং এভাবে কম্পিউটারাইজড সিস্টেম চালু করেছে।
এর ফোকাস হয় উন্নতি নিরীক্ষণ এবং স্কুল ও কলেজের ব্যবস্থাপনা কমিটি গঠন, স্কুল ও কলেজে শিক্ষার্থী তালিকাভুক্তি নিয়ন্ত্রণ, শারীরিক শিক্ষা এবং শিক্ষার্থীদের ক্রীড়াশিক্ষার উন্নতি এবং দুটি গুরুত্বপূর্ণ পাবলিক পরীক্ষার সংগঠন- এসএসসি। (মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট) এবং এইচ.এস.সি. (উচ্চ মাধ্যমিক সার্টিফিকেট) সিলেট বোর্ডের অধীনে পরীক্ষা। এটি ফলাফলের উপর ভিত্তি করে মেধাবী শিক্ষার্থীদের বৃত্তি প্রদান করে।

এইচ এস সি ২০২০ রেজাল্ট ( HSC Exam Result 2020 ) বরিশাল শিক্ষা বোর্ড

বরিশাল শিক্ষাবোর্ডের স্টুডেন্টরা খুব সহজেই এইচ এস সি ২০২০ রেজাল্ট ( HSC Exam Result 2020 ) জানতে পারবে বরিশাল বোর্ডর অফিসিয়াল ওয়েবসাইট থেকে এবং মোবাইল থেকে এসএমএস এর মাধ্যমে।

এসএমএস এর দ্বারা বরিশাল বোর্ডের এইচ এস সি ২০২০ রেজাল্ট জানবে যেভাবেঃ

এসএমএস দ্বারা কাঙ্খিত ফলাফল সবার আগে সবচেয়ে দ্রুত এবং খুব সহজেই পেতে চাইলে, মোবাইলের এমএমএস অপশনে লিখুন >>> HSC < স্পেস > BAR < স্পেস > আপনার এইচএসসি রোল নাম্বার লিখুন < স্পেস > 2020 লিখে সেন্ড করুন 16222 এই নাম্বারে।

অনলাইন থেকে বরিশাল বোর্ডের এইচ এস সি ২০২০ রেজাল্ট পেতে নিচের ওয়েবসাইটে যানঃ

➽ https://ourbd24.com/hsc-exam-result-barisaleducationboard/

➽ https://www.barisalboard.gov.bd/

বরিশাল শিক্ষাবোর্ডঃ
ইন্টারমিডিয়েট এবং মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, বরিশাল (এখানে বিএসইএস হিসাবে উল্লিখিত) 1 999 সালে চালু হয়। এটি বাংলাদেশের শিক্ষা প্রশাসন ও ব্যবস্থাপনায় একটি স্বায়ত্তশাসিত ও স্ব-নিয়ন্ত্রক সংস্থা। দেশের উভয় গুণগত এবং পরিমাণগত শিক্ষা জন্য ক্রমবর্ধমান চাহিদা বিবেচনা করে, BISE- বরিশাল শিক্ষা প্রশাসন ক্ষেত্রের মধ্যে শ্রেষ্ঠত্ব একটি কেন্দ্র হিসেবে এটি বিকাশের চেষ্টা করছে। এর ফোকাস হয় উন্নতি নিরীক্ষণ এবং স্কুল ও কলেজের ব্যবস্থাপনা কমিটি গঠন, স্কুল ও কলেজে শিক্ষার্থী তালিকাভুক্তি নিয়ন্ত্রণ, শারীরিক শিক্ষা এবং শিক্ষার্থীদের ক্রীড়াশিক্ষার উন্নতি এবং তিনটি গুরুত্বপূর্ণ পাবলিক পরীক্ষার সংগঠন- জেএসসি। (জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট) এস.এস.সি. (মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট) এবং এইচ.এস.সি. (উচ্চ মাধ্যমিক সার্টিফিকেট) বরিশাল বিভাগের পরীক্ষা। এটি ফলাফলের উপর ভিত্তি করে মেধাবী শিক্ষার্থীদের বৃত্তি প্রদান করে।

এইচএসসি ২০২০ ফলাফল ( HSC Vocational Result 2020 ) টেকনিক্যাল / কারিগরি শিক্ষাবোর্ড

বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষাবোর্ডের সমমান এইচএসসি ২০২০ ফলাফল ( HSC Vocational Result 2020 ) পাওয়া যাবে শিক্ষাবোর্ডে মূল ওয়েবসাইট / টেকনিক্যাল বোর্ডের অফিসিয়াল ওয়েবসাইট ও মোবাইল ফোনের এস এম এস এর মাধ্যমে।

কারিগরি বোর্ডের এইচএসসি ২০২০ ফলাফল এসএমএস দ্বারা দেখুনঃ

এসএমএস এর মাধ্যমে কারিগরি শিক্ষা বোর্ডের এইচএসসি ২০২০ ফলাফল সবার আগে সবচেয়ে দ্রুত এবং খুব সহজেই জানতে চাইলে, আপনার মোবাইলের এমএমএস অপশনে লিখুন >>> HSC < স্পেস > TEC < স্পেস > আপনার এইচএসসি রোল নাম্বার লিখুন < স্পেস > 2020 লিখে সেন্ড করুন 16222 এই নাম্বারে।

অনলাইন থেকে কারিগরি শিক্ষা বোর্ডের এইচএসসি ২০২০ ফলাফল জানতে নিচের ওয়েবসাইটে যানঃ

➽ https://ourbd24.com/hsc-exam-result-technical-education-board/

➽ http://www.bteb.gov.bd/

বাংলাদেশ টেকনিক্যাল শিক্ষা বোর্ড (বিটিইবি)
পটভূমি

1947 সালে ব্রিটিশ ভারতে বিভাজিত হওয়ার পরপরই, পূর্ব পাকিস্তানে এখন বাংলাদেশকে প্রযুক্তিগত শিক্ষা ও প্রশিক্ষণের সুযোগ দেওয়া খুব অপর্যাপ্ত ছিল। ফলস্বরূপ, সেই সময়ে গৃহীত অর্থনৈতিক কর্মকান্ডে প্রয়োজনীয় দক্ষ জনশক্তির একটি বড় অভাব ছিল। এই অভাবের সম্মুখীন হওয়ার পর প্রযুক্তিগত শিক্ষা ও প্রশিক্ষণ সুবিধাগুলির উন্নয়নে এবং সম্প্রসারণের জন্য দেওয়া হয়।

সুতরাং, পরবর্তীকালে বাণিজ্য, শ্রম ও শিল্প বিভাগের গভর্নর একটি বোর্ড প্রতিষ্ঠা করেন যার নাম "পূর্ব পাকিস্তানের বোর্ড অফ টেকনিক্যাল এডুকেশন ফর টেকনিক্যাল এডুকেশন"। 1954 সালে একটি নির্বাহী আদেশের ভিডিও জিওও নম্বর 188-ইন্ড। ২7.1.54 তারিখের কারিগরি ও বৃত্তিমূলক ইনস্টিটিউটের স্নাতকদের প্রশিক্ষণ ও নিয়ন্ত্রণ পরীক্ষা এবং পুরস্কার সার্টিফিকেট।
1960 সালে প্রযুক্তিগত ও বৃত্তিমূলক শিক্ষার উন্নয়নের জন্য প্রযুক্তিগত শিক্ষা অধিদপ্তর স্থাপিত হয়। কারিগরি শিক্ষা অধিদপ্তর দেশের দ্রুত ডিগ্রি, ডিপ্লোমা এবং বাণিজ্য স্তর প্রযুক্তিগত শিক্ষার দ্রুত উন্নয়ন ও সম্প্রসারণ কাজ শুরু করে।
একাডেমিক কার্যক্রমের ক্রমবর্ধমান মাত্রায় মোকাবেলা করার জন্য, একটি "স্টাটিউটরি বোর্ড" প্রতিষ্ঠার প্রয়োজনটি গভীরভাবে অনুভব করলো। আইন অনুযায়ী একটি সংবিধিবদ্ধ সংস্থা "পূর্ব পাকিস্তানের প্রযুক্তিগত শিক্ষা" প্রতিষ্ঠিত হয়। পূর্ব পাকিস্তানের বিধানসভার 1 9 67 সালের 1 ম কোনটি বর্তমানে বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষা বোর্ড (বিটিইবি)।
এভাবে বাংলাদেশ টেকনিক্যাল শিক্ষা বোর্ড বাংলাদেশের সমগ্র অঞ্চলের উপর আধিপত্য প্রতিষ্ঠা, তত্ত্বাবধান, নিয়ন্ত্রণ, নিয়ন্ত্রণ ও প্রযুক্তিগত ও বৃত্তিমূলক শিক্ষা বিকাশের ক্ষেত্রে অস্তিত্ব লাভ করে। 196২ সালের জুন থেকে বর্তমান প্রজন্মের বোর্ড কার্যকর হয়ে উঠেছে।

বোর্ডের সংবিধান

বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতি বোর্ডের নিয়ন্ত্রণকারী কর্তৃপক্ষ। বোর্ড সম্পর্কিত নিয়ন্ত্রণকারী কর্তৃপক্ষের অবস্থা বিশ্ববিদ্যালয়ের চ্যান্সেলরের অনুরূপ।

বোর্ড গঠিত হয় নিম্নরূপ:
চেয়ারম্যান

নিয়ন্ত্রণকারী কর্তৃপক্ষ দ্বারা চেয়ারম্যান নিযুক্ত করা হয় তিনি বোর্ডের পুরো সময় কর্মকর্তা হিসাবে দায়িত্ব পালন করছেন।

প্রাক্তন সদস্যগণ
কারিগরি শিক্ষার মহাপরিচালক ড
মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক মো
পরিচালক, বিটি, গাজীপুর
প্রিন্সিপাল, কারিগরি শিক্ষক প্রশিক্ষণ কলেজ, ঢাকা।

মনোনীত সদস্যরা

ন্যাশনাল কাউন্সিল অফ টেকনিকাল এডুকেশন কর্তৃক মনোনীত একজন ব্যক্তি।
বুয়েটের ভাইস চ্যান্সেলর বা তাঁর মনোনীত একজন অধ্যাপক।
শিক্ষা মন্ত্রণালয় কর্তৃক মনোনীত পলিটেকনিক ও মনোটেকনিক ইনস্টিটিউটের তিন প্রিন্সিপাল।
নিয়ন্ত্রক কর্তৃপক্ষ কর্তৃক মনোনীত কারিগরি শিক্ষায় আগ্রহী চারটি বিশিষ্ট ব্যক্তির

ক্রিয়াকলাপ
বোর্ড প্রধান ফাংশন হয়:
নির্দেশিকা কোর্স নির্ধারণ
শেখার উপকরণ উন্নয়ন করার ব্যবস্থা করা
সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানসমূহের সাথে সংযুক্তকরণ, অনুমোদন বা আটকানো, অনুমোদন প্রদানের জন্য
ভর্তি এবং স্থানান্তর বা ছাত্রদের শাসন শর্তাবলী নির্ধারণ
পরিদর্শন এবং পদ্ধতির পদ্ধতিটি নির্ধারণ করতে
শিক্ষার শিক্ষা পদ্ধতি / কার্যক্রমগুলি নিরীক্ষণের জন্য
পরীক্ষা পরিচালনা এবং নিয়ন্ত্রন করতে, কর্মক্ষমতা মূল্যায়ন এবং তার ফলাফল প্রকাশ
পাস করা স্নাতক পর্যন্ত ডিপ্লোমা / সার্টিফিকেট প্রদান
সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক ও ব্যবস্থাপনার মধ্যে মধ্যস্থতা বা ব্যবস্থাপনার জন্য;
BTEB- এর পদসমূহের নির্মূল ও বিলোপন সহ সমস্ত প্রশাসনিক বিষয়গুলি নিয়ন্ত্রণ ও নিষ্পত্তি;
চাহিদা মেটানোর জন্য এবং প্রবিধান দ্বারা নির্ধারিত ফি গ্রহণ করতে;
অব্যাহতি এবং পরিচালনা এবং পরিচালনা এবং ইনস্টিটিউট এবং পুরস্কার বৃত্তি এবং পদক পুরস্কার।

অন্যান্য শিক্ষা / কার্যক্রম এবং বিষয়গুলি সম্পাদন করতে যেমনটি সাংগঠনিক বিধিনিষেধ, তত্ত্বাবধান, নিয়ন্ত্রণ, ব্যবস্থাপনা এবং কারিগরি শিক্ষা উন্নয়নের উদ্দেশ্যে প্রয়োজনীয় বিবেচিত হতে পারে।

অপারেশন বোর্ডের দায়িত্বগুলি সহজভাবে কার্যকর করার জন্য চেয়ারম্যানের পরিচালনায় কাজটি সম্পন্ন করার জন্য তিন বিভাগ রয়েছে।

প্রতিটি বিভাগের ফাংশন নিম্নরূপ:

প্রশাসনএই বিভাগটি একটি সচিব দ্বারা পরিচালিত হয়। তিনি বোর্ডের অঙ্কন ও বিতরণকারী কর্মকর্তা এবং সকল প্রশাসকের ক্ষেত্রেও দায়িত্বশীল। কর্মচারী নিয়োগের জন্য নিয়োগপত্র, ছুটি প্রদান ইত্যাদি বিষয়ে সম্মতি প্রদান, অনুমোদনের জন্য বোর্ডের বার্ষিক বাজেট প্রণয়ন এবং জমা রাখা, বোর্ডের তহবিল ইত্যাদির ব্যয়, সংরক্ষণ ও সংরক্ষণের রেকর্ড রাখা। এই ছাড়াও তিনি কমিটির সমস্ত বোর্ড আহ্বান এবং চেয়ারম্যান / বোর্ড দ্বারা নির্ধারিত এবং যখন অন্য কোন কার্যক্রম সম্পাদন করা হয়। সচিবকে এক উপসচিব, একজন সহকারী সচিব, এক সহকারী উইং এর মসৃণ কার্যকরীকরণের জন্য অ্যাকাউন্ট অফিসার, এক রেজিস্ট্রেশন অফিসার এবং ত্রিশ জনকে সহায়তাকারী কর্মী।

পাঠ্যক্রমকারিকুলাম উইং এর নেতৃত্বে একজন পরিচালক পরিচালিত হয়, যিনি উন্নয়ন, মূল্যায়ন পুনর্বিবেচনা এবং বিভিন্ন অনুমোদিত এবং অনুমোদিত কোর্সের জন্য নতুন পাঠ্যক্রমের জন্য দায়ী। তিনি যথাযথ শিক্ষা উপকরণ প্রস্তুত এবং বিভিন্ন প্রযুক্তি ক্ষেত্রের বইপত্র, শিক্ষাগত নিয়মের প্রস্তুতি এবং পুনর্বিবেচনা, অনুমোদিত প্রতিষ্ঠানসমূহের পরিদর্শন এবং একাডেমিক কার্যক্রমের মূল্যায়ন, সমতার সকল ক্ষেত্রে পরীক্ষা এবং সংযুক্তকরণের মান পরীক্ষা এবং অন্য কোনও বহন করার জন্য দায়ী। চেয়ারম্যান / বোর্ড কর্তৃক প্রদত্ত দায়িত্ব পাঠ্যক্রম বিভাগের বোর্ডের কারিকুলাম কার্যক্রম সম্পর্কিত কাজটি সম্পন্ন করার জন্য ছোট মুদ্রণ-সহ-প্রজনন অধ্যায় রয়েছে। পরিচালককে একজন উপ-পরিচালক (গবেষণা), এক মূল্যায়ন কর্মকর্তা, তিন পাঠ্যক্রম বিশেষজ্ঞ, এক ডকুমেন্টেশন অফিসার, এক প্রেস ম্যানেজার এবং বিশ এক সাপোর্টিং স্টাফ দ্বারা সহায়তা করা হয়।

পরিচালক, পাঠ্যক্রম বোর্ডের নতুন প্রতিষ্ঠিত রিসার্চ সেলের গবেষণামূলক কার্যক্রমের জন্য দায়ী এবং একটি অনুমোদনপ্রাপ্ত প্রকল্পের অধীনে বোর্ডের বিভিন্ন পাঠ্যপুস্তকের পাঠ্য পুস্তকগুলির উৎপাদন। বোর্ডের পাঠ্যক্রম বিভাগ বোর্ডে অনুষ্ঠিত হয় যখন CPSC এবং ইউনেস্কো UNEVOC ক্রিয়াকলাপ একাডেমিক সমর্থন দিতে হয়।

পরীক্ষাবোর্ডের পরীক্ষার বিভাগ পরিচালিত হয় পরীক্ষার নিয়ন্ত্রক, যিনি অনুমোদিত কেন্দ্রগুলিতে অনুমোদিত কোর্সের পরীক্ষার ব্যবস্থা এবং পরিচালনা করার জন্য দায়ী। তিনি প্রধান পরীক্ষার নিয়োগের কাজ তত্ত্বাবধান করেন। প্রশ্নপত্রের প্রিন্টিং, সংশ্লিষ্ট কাগজপত্রের প্রিন্টিং এবং পরীক্ষার স্ক্রিপ্টগুলির পরীক্ষা, পরীক্ষার ফলাফল, পরীক্ষা সম্পর্কিত অনুশাসনমূলক কার্যক্রম, নিয়মগুলি সম্পাদন, ফলাফল প্রকাশ, মার্ক শীট ও সার্টিফিকেট প্রেরণ, সংরক্ষণ, সংরক্ষণ ও সংরক্ষণের জন্য রেকর্ড ইত্যাদি। পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক পরীক্ষার বিষয় সম্পর্কিত বৈঠক আহ্বান, সংশ্লিষ্ট পরীক্ষার্থীদের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহণ এবং চেয়ারম্যান / বোর্ড কর্তৃক নির্ধারিত অন্যান্য দায়িত্ব এবং দায়িত্ব পালন করতেও দায়ী। তিনি দুটি ডেপুটি কন্ট্রোলার, তিনজন সহকারী কন্ট্রোলার এবং পনের সমর্থনকারী কর্মীরা

All Exam Result Source In BD

➽ HSC EXAM RESULT 2020 PUBLISHED BY WWW.EDUCATIONBOARDRESULTS.GOV.BD/


➽ HSC VOCATIONAL RESULT 2020 PUBLISHED BY WWW.BTEB.GOV.BD


➽ HSC DIBS RESULT 2020 / DIPLOMA IN BUSINESS STUDIES RESULT PUBLISHED BY ARCHIVE.EDUCATIONBOARD.GOV.BD


➽ HSC DIC RESULT 2020 / DIPLOMA IN COMMERCE RESULT PUBLISHED BY HTTPS://EBOARDRESULTS.COM/APP/STUD/


➽ HSC BM RESULT 2020 PUBLISHED BY HTTPS://OURBD24.COM/HSC-EXAM-RESULT-EDUCATION-BOARD-BD/


➽ HSC EXAM RESULT 2020 PUBLISHED BY HTTP://EBMEB.GOV.BD/

Thanks 🙂