বাংলাদেশ মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের অধীনস্থ নয়টি শিক্ষাবোর্ড যথাক্রমেঃ- বরিশাল শিক্ষা বোর্ড, চট্টগ্রাম শিক্ষা বোর্ড, কুমিল্লা শিক্ষা বোর্ড, ঢাকা শিক্ষা বোর্ড, দিনাজপুর শিক্ষা বোর্ড, যশোর শিক্ষা বোর্ড, রাজশাহী শিক্ষা বোর্ড, সিলেট শিক্ষা বোর্ড, টেকনিক্যাল/ কারিগরি শিক্ষা বোর্ডের অধীনে অনুষ্ঠিত ২০১৯ সালের জে এস সি এবং জেডিসি পরীক্ষার রেজাল্ট আগামী ২৯ ই ডিসেম্বর প্রকাশিত হতে পারে।

স্বাভাবিকভাবেই পরীক্ষার পর থেকে শুরু করে রেজাল্ট প্রকাশিত না হওয়া পর্যন্ত, ছাত্র / ছাত্রীরা নিজের এবং অবিভাবকগন তাদের সন্তানদের ফলাফল নিয়ে খুবই চিন্তিত থাকেন। সবচেয়ে বেশি সমস্যায় পরতে হয় রেজাল্ট প্রকাশিত হওয়ার দিন। কারন, বাংলাদেশ মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের এই www.educationboardresults.gov.bd এই ওয়েবসাইটটি অতিরিক্ত ভিজিটর আর লোডিং এর চাপের কারনে সাইটটি অফ হয়ে যায়। ফলে ছাত্র / ছাত্রী এবং অবিভাবকগন তাদের কাঙ্খিত জে এস সি রেজাল্ট যথাসময়ে না পেয়ে হতাশা আর বিভ্রান্তির মধ্যে পরে যায়। অথচ আমাদের মধ্যে অনেকেরই জানা নাই যে, শিক্ষা বোর্ডের এই www.educationboardresults.gov.bd ওয়েবসাইট টি ছাড়াও আরো অনেকগুলো অফিসিয়াল ওয়েবসাইট আছে, যেখান থেকে আপনি খুব সহজেই ২০১৯ সালের জে এস সি এবং জেডিসি রেজাল্ট ফুল মার্কশিট সহকারে খুব সহজেই ডাউনলোড করতে পারবেন

আপনি সবার আগে সবচেয়ে দ্রুত এবং খুব সহজেই জে এস সি রেজাল্ট ২০১৯ এবং জেডিসি ফলাফল ২০১৯ ( JSC and JDC Exam Result 2019 ) জানতে পারবেন এখান থেকেই…….

মোবাইল থেকে এসএমএস এস মাধ্যমে জেএসসি পরীক্ষার ফলাফল ২০১৯ এবং জেডিসি রেজাল্ট ২০১৯ জানবে কিভাবে?

➤ Mobile Phone থেকে সকল শিক্ষা বোর্ডের JSC Exam Result 2019 জানবেন কিভাবে?

মোবাইল ফোন থেকে খুব সহজেই আপনার জে এস সি রেজাল্ট 2019 জানতে…
( বিস্তারিত জানতে পোস্টের নিচের দিকে দেখুন, প্রত্যেক শিক্ষাবোর্ডের জন্য আলাদা আলাদা ভাবে বর্ননা করা আছে )

  • ➜ প্রথমে আপনার মোবাইলৈর মেসেজ অপশনে যান…
  • ➜ এবার টাইপ করুন JSC অথবা মাদ্রাসা স্টুডেন্ট হলে লিখুন JDC এবং একটি স্পেস অর্থাৎ একটু ফাকা করুন…
  • ➜ তারপর আবার আপনার শিক্ষা বোর্ডের নামের প্রথম তিন অক্ষর লিখুন এবং একটি স্পেস দিয়ে ফাকা করুন…
  • ➜ তারপর আপনার জে এস সি / জেডিসি রোল নাম্বারটি লিখুন এবং একটি স্পেস দিন…
  • ➜ তারপর আপনার জে এস সি / জেডিসি পরীক্ষার সাল 2019 লিখুন……..
  • ➜ এবার পুরো মেসেজটি পাঠিয়ে দিন 16222 এই নাম্বারে……
  • ➜ সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে ফিরতি মেসেজে আপনার ২০১৯ সালের জে এস সি / জেডিসি রেজাল্ট এবং ফুল মার্কশিট জানিয়ে দেয়া হবে

সাধারন শিক্ষাবোর্ড → উদাহরন:- JSC DHA 312532 2019 পাঠিয়ে দিন 16222 এই নাম্বারে। 

মাদ্রাসা শিক্ষাবোর্ড → উদাহরন:- JDC MAD 312532 2019 পাঠিয়ে দিন 16222 এই নাম্বারে।

সকল শিক্ষাবোর্ডের প্রথম তিন অক্ষর বা শর্টকোড দেখে নিন:

  • Dhaka Education Board → DHA
  • Chittagong Education Board → CHI
  • Comilla Education Board → COM
  • Dinajpur Education Board → DIN
  • Jessore Education Board → JES
  • Rajshahi Education Board → RAJ
  • Sylhet Education Board → SYL
  • Barisal Education Board → BAR
  • Madrasah Education Board → MAD

অনলাইন থেকে জেএসসি রেজাল্ট ২০১৯ এবং জেডিসি ফলাফল ২০১৯ জানতে নিচের রেজাল্ট বক্সে……

  • →প্রথমে “Examination” অপশনের সামনে থাকা “Select One” থেকে “JSC/JDC”  সিলেক্ট করুন…
  • →তারপর Year অপশনের সামনে থাকা “Select One” থেকে আপনার পরীক্ষার সাল 2019 সিলেক্ট করুন…
  • →তারপর Board অপশনের সামনে থাকা “Select One” থেকে আপনার শিক্ষা বোর্ড সিলেক্ট করুন…
  • →তারপর Roll অপশনের সামনে থাকা খালি বক্সে আপনার জে এস সি পরীক্ষার ২০১৯ অথবা জেডিসি পরীক্ষার ২০১৯ এর রোল নাম্বার টি লিখুন
  • →তারপর Reg: Number অপশনের সামনে থাকা খালি বক্সে আপনার জে এস সি পরীক্ষার ২০১৯ অথবা জেডিসি পরীক্ষার ২০১৯ এর রেজিষ্ট্রেশন নাম্বার টি লিখুন
  • →তারপর 6+2= এরকম একটি অপশন দেখতে পাবেন, আপনি সেখানের ফাকা বক্সে উক্ত সংখ্যার যোগ ফলটি বসিয়ে দিন।
  • →সর্বশেষ নিচের ডান কোনের Submit বাটনে ক্লিক করে সাবমিট করুন এবং কিছুক্ষন ওয়েট করে আপনার কাঙ্খিত ফলাফল দেখুন প্রয়োজনে সেভ অথবা প্রিন্ট করুন।
educationboardresults - রেজাল্ট দেখতে ক্লিক করুন


JSC রেজাল্ট 2019 এবং JDC রেজাল্ট 2019 দেখার দেখার বিকল্প সাইট নিচে দেখুন…..

ফলাফল প্রকাশের দিন যদি এখান থেকে রেজাল্ট দেখতে কোন সমস্যা হয়, তাহলে আপনি শিক্ষা বোর্ডের বিকল্প সাইট থেকে ২০১৯ সালের জে এস সি এবং সমমান পরীক্ষার রেজাল্ট (জে এস সি ফলাফল ২০১৯) দেখতে পারবেন নিচের সাইটগুলো থেকে……

জে এস সি ও জেডিসি পরীক্ষার রেজাল্ট দেখার সকল সার্ভার লিংক দেখুন, এই লিংক থেকে নিশ্চিত কোন ঝামেলা ছাড়াই ফলাফল ডাউনলোড করে নিতে পারবেন → “এই লিংকে ক্লিক করুন”

অনলাইন থেকে ২০১৯ সালের জে এস সি ফলাফল এবং জেডিসি পরীক্ষার ফলাফল জানার অন্যতম বিকল্প উপায় হল ‘শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের Eiin Number দিয়ে অনলাইন থেকে রেজাল্ট সংগ্রহ করা….
শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের Eiin Number দিয়ে অনলাইন থেকে রেজাল্ট সংগ্রহ করার একটি বড় সুবিধা হল, এই পদ্ধতিতে আপনি একটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সকল ছাত্র / ছাত্রীর ২০১৯ সালের জে এস সি ফলাফল একসাথে ডাউনলোড করে নিতে পারবেন। এতে করে আপনি একজন একজন করে রেজাল্ট দেখার জন্য দীর্ঘ সময় ধরে অনলাইনে থাকার ঝামেলা থেকে মুক্তি পাবেন। অনলাইন থেকে নিজ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের Eiin Number ব্যবহার করে ২০১৯ সালের জে এস সি রেজাল্ট এবং জেডিসি পরীক্ষার রেজাল্ট জানার জন্য বাংলাদেশ শিক্ষা বোর্ডের বড় দুটি ওয়েবসাই থেকে ফলাফল সংগ্রহের পদ্ধতির লিংক নিচে দেয়া হল। আপনি সেখানে ক্লিক করে পরবর্তী নিয়ম অনুসারে আপনার কাঙ্খিত ফলাফল সংগ্রহ করুন……

mail.educationboard.gov.bd/web/ থেকে EIIN NUMBER দিয়ে ২০১৯ সালের JSC ও JDC সমমান পরীক্ষার রেজাল্ট জানবেন কিভাবে?

→ কিভাবে eboardresults.com/app/stud/ থেকে  Institution Result অপশন  সিলেক্ট করে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের Eiin Number ব্যবহার করে JSC Exam Result 2019 And JDC Exam Result 2019 জানবেন?

☞ উপরোক্ত পদ্ধতি ছাড়াও রেজাল্ট এবং ফুল মার্কশিট ডাউনলোড করার বিকল্প দুটি সেরা উপায় হলঃ 

✱মোবাইল ফোন থেকে SMS এর মাধ্যমে রেজাল্ট এবং ফুল মার্কশিট সংগ্রহ করা এবং 
✱বাংলাদেশ মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের সকল শিক্ষা বোর্ড ই তাদের নিজস্ব ওয়েবসাইটে জে এস সি রেজাল্ট প্রকাশ করে থাকে। আপনি আপনার শিক্ষাবোর্ডের নিজস্ব ওয়েবসাইট থেকে খুব সহজেই ২০১৯ সালের জে এস সি রেজাল্ট এবং ফুল মার্কশিট ডাউনলোড করে নিতে পারবেন। নিচের তালিকা থেকে আপনার শিক্ষা বোর্ড নির্বাচন করুন এবং পরবর্তী নিয়ম অনুসারে ফলাফল সংগ্রহ করুন………

বরিশাল মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড – JSC পরীক্ষার ফলাফল 2019 বা জেএসসি রেজাল্ট 2019

SMS System: বরিশাল শিক্ষা বোর্ডের ২০১৯ সালের জে এস সি রেজাল্ট (জে এস সি ফলাফল ২০১৯) আপনি আপনার মোবাইল ফোন থেকে একটি SMS পাঠিয়েই জানতে পারবেন। ফলাফল দ্রুত এবং সহজে পাওয়ার ক্ষেত্রে এটিই সবচেয়ে সেরা পদ্ধতি। SMS এর মাধ্যমে জেএসসি ফলাফল ২০১৯ জানতে….

  • ➜ প্রথমে আপনার মোবাইলৈর মেসেজ অপশনে যান…
  • ➜ এবার টাইপ করুন JSC এবং একটি স্পেস অর্থাৎ একটু ফাকা করুন…
  • ➜ তারপর আবার লিখুন BAR এবং একটি স্পেস দিয়ে ফাকা করুন…
  • ➜ তারপর আপনার জে এস সি রোল নাম্বারটি লিখুন এবং একটি স্পেস দিন…
  • ➜ তারপর আপনার জে এস সি পরীক্ষার সাল 2019 লিখুন……..
  • ➜ এবার পুরো মেসেজটি পাঠিয়ে দিন 16222 এই নাম্বারে……
  • ➜ সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে ফিরতি মেসেজে আপনার ২০১৯ সালের জে এস সি রেজাল্ট এবং ফুল মার্কশিট জানিয়ে দেয়া হবে।

উদাহরন:- JSC BAR 312532 2019 পাঠিয়ে দিন 16222 এই নাম্বারে।

Online System: প্রতি বছরই বরিশাল মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষাবোর্ডের অধীন অনুষ্ঠিত জে এস সি পরীক্ষার ফলাফল বাংলাদেশ শিক্ষা বোর্ডের ওয়েবসাইট সমূহে প্রকাশের পাশাপাশি বরিশাল শিক্ষা বোর্ড ও তাদের নিজস্ব ওয়েবসাইটে ফলাফল প্রকাশ করে থাকে। আপনি যদি বরিশাল শিক্ষা বোর্ডের অধীনে থাকা কোন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান / ছাত্র / ছাত্রীর ২০১৯ সালের জে এস সি পরীক্ষার ফলাফল জানতে চান তাহলে নিচের লিংকে ক্লিক করুন। নিজ শিক্ষাবোর্ডের  ওয়েব সাইট থেকে ফলাফল সংগ্রহ করার সবচেয়ে বড় সুবিধা হল, এখানে অতিরিক্ত লোডিং / ভিজিটরের চাপ না থাকার কারনে আপনি খুব সহজেই জে এস সি ফলাফল ডাউনলোড করতে পারবেন…………

বরিশাল শিক্ষা বোর্ডের জে এস সি রেজাল্ট ২০১৯ অনলাইন থেকে জানতে “এখানে ক্লিক করুন 

চট্টগ্রাম মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড – জে এস সি রেজাল্ট 2019 বা জেএসসি পরীক্ষার ফলাফল ২০১৯

SMS System: সবচেয়ে দ্রুত এবং কার্যকর পদ্ধতি হল মোবাইল ফোন থেকে এস এম এস(sms) পাঠিয়ে রেজাল্ট জানা। বাংলাদেশের সকল মোবাইল অপারেটর থেকেই এই সুবিধা ভোগ করা যাবে। এজন্য আপনার (গ্রামীণফোন, রবি, বাংলালিংক, এয়ারটেল, সিটিসেল, টেলিটক) যে কোন একটি সিম ব্যবহার করলেই চলবে।
চট্টগ্রাম মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের জেএসসি রেজাল্ট ২০১৯ এস এম এস (sms) এর মাধ্যমে জানতে…

  • ➜ প্রথমে আপনার মোবাইলের মেসেজ অপশনে গিয়ে লিখুন JSC …
  • ➜ তারপর একটি স্পেস দিয়ে শিক্ষা বোর্ডের প্রথম তিন অক্ষর CHI লিখুন…
  • ➜ তারপর আপানার জে এস সি পরীক্ষার রোল নম্বর লিখুন ইংরেজী অক্ষরে…
  • ➜ তারপর আবার একটি স্পেস দিয়ে আপনার জে এস সি পরীক্ষার সাল 2019 লিখুন
  • ➜ এবং সর্বশেষ এতক্ষনে লিখিত মেসেজ টি পাঠিয়ে দিন 16222 এই নম্বরে।

উদাহরন:- JSC CHI 312532 2019 পাঠিয়ে দিন 16222 এই নাম্বারে

Online System: চট্টগ্রাম শিক্ষা বোর্ড ও তাদের নিজস্ব ওয়েবসাইটে প্রতি বছর জে এস সি পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশ করে থাকে। আপনি যদি চট্টগ্রাম বোর্ডের অধীনে জে এস সি পরীক্ষা দিয়ে থাকেন অথবা কোন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বা ছাত্র / ছাত্রীর ২০১৯ সালের জে এস সি পরীক্ষার ফলাফল (জে এস সি ফলাফল ২০১৯) জানতে চান তাহলে খুব সহজেই আপনি চট্টগ্রাম শিক্ষা বোর্ডের ও য়েব সাইট থেকে আপনার কাঙ্খিত ফলাফল ডাউনলোড করতে পারবেন। কারন, এক শিক্ষা বোর্ডের স্টুডেন্ট অন্য শিক্ষা বোর্ডের ওয়েবসাইট ব্রাউজ করেনা, যার ফলে অতিরিক্ত লোডিং চাপ ও নেই।
আপনি যদি সবার আগে সবচেয়ে দ্রুত এবং খুব সহজেই চট্টগ্রাম শিক্ষা বোর্ডের ২০১৯ সালের জে এস সি পরীক্ষার ফলাফল চট্টগ্রাম শিক্ষা বোর্ডের নিজস্ব ওয়েবসাইট থেকেই ডাউনলোড করতে চান তাহলে নিচের লিংকে ক্লিক করুন……….

চট্টগ্রাম শিক্ষা বোর্ডের জেএসসি রেজাল্ট ২০১৯ অনলাইন থেকে জানতে এখানে ক্লিক করুন

কুমিল্লা মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড – জেএসসি রেজাল্ট ২০১৯ বা JSC পরীক্ষার ফলাফল 2019

SMS System: সবচেয়ে দ্রুত এবং কার্যকর পদ্ধতি হল মোবাইল ফোন থেকে এস এম এস(sms) পাঠিয়ে রেজাল্ট জানা। বাংলাদেশের সকল মোবাইল অপারেটর থেকেই এই সুবিধা ভোগ করা যাবে। এজন্য আপনার (গ্রামীণফোন, রবি, বাংলালিংক, এয়ারটেল, সিটিসেল, টেলিটক) যে কোন একটি সিম ব্যবহার করলেই চলবে।
কুমিল্লা মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের JSC Result 2019 (Secondary School Certificate Exam Result 2019) এস এম এস (sms) এর মাধ্যমে জানতে…

  • ➜ প্রথমে আপনার মোবাইলের মেসেজ অপশনে যান……
  • ➜ এবার টাইপ করুন JSC এবং একটি স্পেস অর্থাৎ একটু ফাকা করুন…
  • ➜ তারপর আবার লিখুন COM এবং একটি স্পেস দিয়ে ফাকা করুন…
  • ➜ তারপর আপনার জে এস সি রোল নাম্বারটি লিখুন এবং একটি স্পেস দিন…
  • ➜ তারপর আপনার জে এস সি পরীক্ষার সাল 2019 লিখুন……..
  • ➜ এবার পুরো মেসেজটি পাঠিয়ে দিন 16222 এই নাম্বারে……
  • ➜ সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে ফিরতি মেসেজে আপনার ২০১৯ সালের জে এস সি রেজাল্ট এবং ফুল মার্কশিট জানিয়ে দেয়া হবে।

উদাহরন:- JSC COM 312532 2019 পাঠিয়ে দিন 16222 এই নাম্বারে।

Online System: কুমিল্লা মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের অধীনে অনুষ্ঠিত 2019 সালের জে এস সি রেজাল্ট (জেএসসি ফলাফল ২০১৯) ‘বাংলাদেশ শিক্ষাবোর্ডের ফলাফল প্রকাশের ওয়েবসাইট সমূহের পাশাপাশি’ কুমিল্লা বোর্ডের নিজস্ব ওয়েবসাইটে ও পাবলিশ করা হবে। কুমিল্লা শিক্ষাবোর্ডের অধীনে থাকা সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান / ছাত্র / ছাত্রীর জে এস সি ফলাফল খুব সহজেই সবার আগে সবচেয়ে দ্রুত ডাউনলোড করতে চাইলে নিচের লিংকে ক্লিক করে পরবর্তী ধাপ অনুসরন করে ফলাফল সংগ্রহ করুন……

কুমিল্লা শিক্ষা বোর্ডের জেএসসি পরীক্ষার ফলাফল ২০১৯ জানতে “এখানে ক্লিক করুন”

ঢাকা মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড – জেএসসি পরীক্ষার ফলাফল ২০১৯ বা জে এস সি পরীক্ষার ফলাফল ২০১৯

SMS System: সবচেয়ে দ্রুত এবং কার্যকর পদ্ধতি হল মোবাইল ফোন থেকে এস এম এস(sms) পাঠিয়ে রেজাল্ট জানা। বাংলাদেশের সকল মোবাইল অপারেটর থেকেই এই সুবিধা ভোগ করা যাবে। এজন্য আপনার (গ্রামীণফোন, রবি, বাংলালিংক, এয়ারটেল, সিটিসেল, টেলিটক) যে কোন একটি সিম ব্যবহার করলেই চলবে।
মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, ঢাকা এর জেএসসি রেজাল্ট ২০১৯ (Secondary School Certificate Exam Result 2019) এস এম এস (sms) এর মাধ্যমে জানতে…

  • ➜ প্রথমে আপনার মোবাইলের মেসেজ অপশনে যান
  • ➜ এবার টাইপ করুন JSC এবং একটি স্পেস অর্থাৎ একটু ফাকা করুন…
  • ➜ তারপর আবার লিখুন DHA এবং একটি স্পেস দিয়ে ফাকা করুন…
  • ➜ তারপর আপনার জে এস সি রোল নাম্বারটি লিখুন এবং একটি স্পেস দিন…
  • ➜ তারপর আপনার জে এস সি পরীক্ষার সাল 2019 লিখুন……..
  • ➜ এবার পুরো মেসেজটি পাঠিয়ে দিন 16222 এই নাম্বারে……
  • ➜ সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে ফিরতি মেসেজে আপনার ২০১৯ সালের জে এস সি রেজাল্ট এবং ফুল মার্কশিট জানিয়ে দেয়া হবে।

উদাহরন:- JSC DHA 312532 2019 পাঠিয়ে দিন 16222 এই নাম্বারে

Online System: ঢাকা শিক্ষাবোর্ড প্রতি বছর ই তাদের অধীনস্থ সকল স্কুল / মাধ্যমিক বিদ্যালের সকল স্টুডেন্টদের জে এস সি ফলাফল নিজস্ব ওয়েবসাইটের মাধ্যমে প্রকাশ করে থাকে। আপনি আপনার ঢাকা শিক্ষাবোর্ড এর কাঙ্খিত জে এস সি ফলাফল বাংলাদেশ মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষাবোর্ডের ওয়েবসাইটের পাশাপাশি ঢাকা বোর্ডের নিজস্ব ওয়েবসাইট থেকেও ডাউনলোড করতে পারবেন।
ঢাকা শিক্ষাবোর্ডের অধীনে থাকা সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান / ছাত্র / ছাত্রীর জে এস সি ফলাফল খুব সহজেই সবার আগে সবচেয়ে দ্রুত ডাউনলোড করতে চাইলে নিচের লিংকে ক্লিক করে পরবর্তী ধাপ অনুসরন করে রেজাল্ট সংগ্রহ করুন……

ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের জে এস সি পরীক্ষার ফলাফল ২০১৯ অনলাইন থেকে জানতে “এখানে ক্লিক করুন

দিনাজপুর মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড – জে এস সি পরীক্ষার ফলাফল ২০১৯ বা JSC পরীক্ষার ফলাফল 2019

SMS System: দিনাজপুর মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের ২০১৯ সালের জে এস সি রেজাল্ট আপনি আপনার মোবাইল ফোন থেকে একটি SMS পাঠিয়েই জানতে পারবেন। ফলাফল দ্রুত এবং সহজে পাওয়ার ক্ষেত্রে এটিই সবচেয়ে সেরা পদ্ধতি। SMS এর মাধ্যমে জে এস সি ফলাফল ২০১৯ জানতে….

  • ➜ প্রথমে আপনার মোবাইলৈর মেসেজ অপশনে যান…
  • ➜ এবার টাইপ করুন JSC এবং একটি স্পেস অর্থাৎ একটু ফাকা করুন…
  • ➜ তারপর আবার লিখুন DIN এবং একটি স্পেস দিয়ে ফাকা করুন…
  • ➜ তারপর আপনার জে এস সি রোল নাম্বারটি লিখুন এবং একটি স্পেস দিন…
  • ➜ তারপর আপনার জে এস সি পরীক্ষার সাল 2019 লিখুন……..
  • ➜ এবার পুরো মেসেজটি পাঠিয়ে দিন 16222 এই নাম্বারে……
  • ➜ সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে ফিরতি মেসেজে আপনার ২০১৯ সালের জে এস সি রেজাল্ট এবং ফুল মার্কশিট জানিয়ে দেয়া হবে।

উদাহরন:- JSC DIN 312532 2019 পাঠিয়ে দিন 16222 এই নাম্বারে।

Online System: প্রতি বছরই দিনাজপুর মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের অধীনে অনুষ্ঠিত জে এস সি পরীক্ষার ফলাফল (জে এস সি ফলাফল ২০১৯) বাংলাদেশ শিক্ষা বোর্ডের ওয়েবসাইট সমূহে প্রকাশের পাশাপাশি Dinajpur Education Board ও তাদের নিজস্ব ওয়েবসাইটে ফলাফল প্রকাশ করে থাকে। আপনি যদি Dinajpur Education Board এর অধীনে থাকা কোন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান / ছাত্র / ছাত্রীর ২০১৯ সালের JSC Exam Result জানতে চান তাহলে নিচের লিংকে ক্লিক করুন। নিজ শিক্ষাবোর্ডের  ওয়েব সাইট থেকে রেজাল্ট সংগ্রহ করার সবচেয়ে বড় সুবিধা হল, এখানে অতিরিক্ত লোডিং / ভিজিটরের চাপ না থাকার কারনে আপনি খুব সহজেই জে এস সি ফলাফল ডাউনলোড করতে পারবেন…………

দিনাজপুর শিক্ষা বোর্ডের জেএসসি পরীক্ষার রেজাল্ট ২০১৯ অনলাইন থেকে জানতে “এখানে ক্লিক করুন

যশোর মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড – জেএসসি পরীক্ষার রেজাল্ট ২০১৯ বা জেএসসি পরীক্ষার ফলাফল ২০১৯

SMS System: তাৎক্ষনিক রেজাল্ট এবং মার্কশিট পাওয়ার সবচেয়ে দ্রুত এবং কার্যকর পদ্ধতি হল Mobile Phone থেকে 16222 এই নম্বরে SMS পাঠিয়ে রেজাল্ট এবং মার্কশিট পাওয়া। বাংলাদেশের সকল মোবাইল অপারেটর থেকেই এই সুবিধা পাওয়া যাবে। এজন্য আপনার (গ্রামীণফোন, রবি, বাংলালিংক, এয়ারটেল, সিটিসেল, টেলিটক) যে কোন একটি সিম ব্যবহার করলেই চলবে।
মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, যশোর এর JSC Result 2019 (জে এস সি ফলাফল ২০১৯) (Secondary School Certificate Exam Result 2019) এস এম এস (sms) এর মাধ্যমে জানতে…

  • ➜ প্রথমে আপনার মোবাইলের মেসেজ অপশনে গিয়ে লিখুন JSC
  • ➜ স্পেস আপনার বোর্ডের প্রথম তিন অক্ষর JES লিখুন..
  • ➜ স্পেস আপানার জে এস সি পরীক্ষার রোল নম্বর লিখুন…
  • ➜ আবার স্পেস দিয়ে আপনার জে এস সি পরীক্ষার সাল 2019 লিখুন…
  • ➜ এবং মেসেজ টি পাঠিয়ে দিন 16222 এই নম্বরে।

উদাহরন:- JSC JES 312532 2019 পাঠিয়ে দিন 16222 এই নাম্বারে।

Online System: মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, যশোর ও তাদের নিজস্ব ওয়েবসাইটে প্রতি বছর JSC Exam Result প্রকাশ করে থাকে। আপনি যদি Jessore Education Board এর অধীনে জে এস সি পরীক্ষা দিয়ে থাকেন অথবা কোন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বা ছাত্র / ছাত্রীর JSC Exam Result 2019 জানতে চান তাহলে খুব সহজেই আপনি যশোর শিক্ষা বোর্ডের ওয়েব সাইট থেকে আপনার কাঙ্খিত ফলাফল Download করতে পারবেন। কারন, এক শিক্ষা বোর্ডের স্টুডেন্ট অন্য শিক্ষা বোর্ডের ওয়েবসাইট ব্রাউজ করেনা, যার ফলে অতিরিক্ত লোডিং এর চাপ ও নেই।
আপনি যদি সবার আগে সবচেয়ে দ্রুত এবং খুব সহজেই Jessore Education Board ২০১৯ সালের JSC Result যশোর শিক্ষা বোর্ডের নিজস্ব ওয়েবসাইট থেকেই ডাউনলোড করতে চান তাহলে নিচের লিংকে ক্লিক করুন……….

যশোর শিক্ষা বোর্ডের জেএসসি পরীক্ষার ফলাফল 2019 জানতে “এখানে ক্লিক করুন

রাজশাহী মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড – জে এস সি রেজাল্ট 2019 বা JSC পরীক্ষার ফলাফল 2019

SMS System: তাৎক্ষনিক রেজাল্ট এবং মার্কশিট পাওয়ার সবচেয়ে দ্রুত এবং কার্যকর পদ্ধতি হল মোবাইল ফোন থেকে এস এম এস(sms) পাঠিয়ে রেজাল্ট এবং মার্কশিট পাওয়া। বাংলাদেশের সকল মোবাইল অপারেটর থেকেই এই সুবিধা পাওয়া যাবে। এজন্য আপনার (গ্রামীণফোন, রবি, বাংলালিংক, এয়ারটেল, সিটিসেল, টেলিটক) যে কোন একটি সিম ব্যবহার করলেই চলবে।
মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, রাজশাহী এর জেএসসি রেজাল্ট ২০১৯ (Secondary School Certificate Exam Result 2019) এস এম এস (sms) এর মাধ্যমে জানতে…

  • ➜ প্রথমে আপনার মোবাইলের মেসেজ অপশনে যান
  • ➜ এবার টাইপ করুন JSC এবং একটি স্পেস অর্থাৎ একটু ফাকা করুন…
  • ➜ তারপর আবার লিখুন RAJ এবং একটি স্পেস দিয়ে ফাকা করুন…
  • ➜ তারপর আপনার জে এস সি রোল নাম্বারটি লিখুন এবং একটি স্পেস দিন…
  • ➜ তারপর আপনার জে এস সি পরীক্ষার সাল 2019 লিখুন……..
  • ➜ এবার পুরো মেসেজটি পাঠিয়ে দিন 16222 এই নাম্বারে……
  • ➜ সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে ফিরতি মেসেজে আপনার ২০১৯ সালের জে এস সি রেজাল্ট এবং ফুল মার্কশিট জানিয়ে দেয়া হবে।

উদাহরন:- JSC RAJ 312532 2019 পাঠিয়ে দিন 16222 এই নাম্বারে।

Online System: রাজশাহী মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের অধীনে অনুষ্ঠিত 2019 সালের জে এস সি ফলাফল (জে এস সি ফলাফল ২০১৯) ‘বাংলাদেশ শিক্ষাবোর্ডের ফলাফল প্রকাশের ওয়েবসাইট সমূহের পাশাপাশি’ Rajshahi Board নিজস্ব ওয়েবসাইটে ও পাবলিশ করা হবে। Rajshahi Education Board এর অধীনে থাকা সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান / ছাত্র / ছাত্রীর JSC Result 2019 খুব সহজেই সবার আগে সবচেয়ে দ্রুত Online থেকে Download করতে চাইলে নিচের লিংকে ক্লিক করে পরবর্তী ধাপ অনুসরন করে ফলাফল সংগ্রহ করুন……

রাজশাহী শিক্ষা বোর্ডের jsc রেজাল্ট 2019 / জে এস সি ফলাফল ২০১৯ জানতে “এখানে ক্লিক করুন

সিলেট মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড – জেএসসি পরীক্ষার ফলাফল 2019 বা জেএসসি ফলাফল ২০১৯

SMS System: তাৎক্ষনিক রেজাল্ট এবং মার্কশিট পাওয়ার সবচেয়ে দ্রুত এবং কার্যকর পদ্ধতি হল Mobile Phone থেকে 16222 এই নম্বরে SMS পাঠিয়ে রেজাল্ট এবং মার্কশিট পাওয়া। বাংলাদেশের সকল মোবাইল অপারেটর থেকেই এই সুবিধা পাওয়া যাবে। এজন্য আপনার (গ্রামীণফোন, রবি, বাংলালিংক, এয়ারটেল, সিটিসেল, টেলিটক) যে কোন একটি সিম ব্যবহার করলেই চলবে।
মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, সিলেট এর জে এস সি রেজাল্ট 2019 (Secondary School Certificate Exam Result 2019) এস এম এস (sms) এর মাধ্যমে জানতে…

  • ➜ প্রথমে আপনার মোবাইলের মেসেজ অপশনে যান
  • ➜ এবার টাইপ করুন JSC এবং একটি স্পেস অর্থাৎ একটু ফাকা করুন…
  • ➜ তারপর আবার লিখুন SYL এবং একটি স্পেস দিয়ে ফাকা করুন…
  • ➜ তারপর আপনার জে এস সি রোল নাম্বারটি লিখুন এবং একটি স্পেস দিন…
  • ➜ তারপর আপনার জে এস সি পরীক্ষার সাল 2019 লিখুন……..
  • ➜ এবার পুরো মেসেজটি পাঠিয়ে দিন 16222 এই নাম্বারে……
  • ➜ সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে ফিরতি মেসেজে আপনার ২০১৯ সালের জে এস সি রেজাল্ট এবং ফুল মার্কশিট জানিয়ে দেয়া হবে।

উদাহরন:- JSC SYL 312532 2019 পাঠিয়ে দিন 16222 এই নাম্বারে।

Online System: সিলেট শিক্ষাবোর্ড প্রতি বছর ই তাদের অধীনস্থ সকল স্কুল / মাধ্যমিক বিদ্যালের সকল স্টুডেন্টদের জে এস সি রেজাল্ট নিজস্ব ওয়েবসাইটের মাধ্যমে প্রকাশ করে থাকে। আপনি আপনার Sylhet Education Board এর কাঙ্খিত JSC Exam Result (জে এস সি ফলাফল ২০১৯) বাংলাদেশ মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষাবোর্ডের ওয়েবসাইটের পাশাপাশি Sylhet Board নিজস্ব ওয়েবসাইট থেকেও ডাউনলোড করতে পারবেন।
Sylhet Education Board এর অধীনে থাকা সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান / ছাত্র / ছাত্রীর জে এস সি ফলাফল খুব সহজেই সবার আগে সবচেয়ে দ্রুত ডাউনলোড করতে চাইলে নিচের লিংকে ক্লিক করে পরবর্তী ধাপ অনুসরন করে রেজাল্ট সংগ্রহ করুন……

সিলেট শিক্ষা বোর্ডের জেএসসি ফলাফল ২০১৯ / জেএসসি রেজাল্ট 2019 অনলাইন থেকে জানতে “এখানে ক্লিক করুন

বাংলাদেশ মাদ্রসা শিক্ষা বোর্ড – ( জেডিসি রেজাল্ট ২০১৯ ) জেডিসি ফলাফল ২০১৯

SMS System: বাংলাদেশ মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডের ২০১৯ সালের জেডিসি রেজাল্ট আপনি আপনার মোবাইল ফোন থেকে একটি SMS পাঠিয়েই জানতে পারবেন। ফলাফল দ্রুত এবং সহজে পাওয়ার ক্ষেত্রে এটিই সবচেয়ে সেরা পদ্ধতি। SMS এর মাধ্যমে জেডিসি ফলাফল ২০১৯ জানতে….

  • ➜ প্রথমে আপনার মোবাইলৈর মেসেজ অপশনে যান…
  • ➜ এবার টাইপ করুন JDC এবং একটি স্পেস অর্থাৎ একটু ফাকা করুন…
  • ➜ তারপর আবার লিখুন MAD এবং একটি স্পেস দিয়ে ফাকা করুন…
  • ➜ তারপর আপনার জেডিসি রোল নাম্বারটি লিখুন এবং একটি স্পেস দিন…
  • ➜ তারপর আপনার জেডিসি পরীক্ষার সাল 2019 লিখুন……..
  • ➜ এবার পুরো মেসেজটি পাঠিয়ে দিন 16222 এই নাম্বারে……
  • ➜ সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে ফিরতি মেসেজে আপনার ২০১৯ সালের জেডিসি পরীক্ষার রেজাল্ট এবং ফুল মার্কশিট জানিয়ে দেয়া হবে।

উদাহরন:- JDC MAD 312532 2019 পাঠিয়ে দিন 16222 এই নাম্বারে।

Online System: বাংলাদেশ মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডের অধীনে অনুষ্ঠিত ২০১৯ সালের জেডিসি পরীক্ষার ফলাফল ‘বাংলাদেশ শিক্ষা বোর্ডের ওয়েবসাইট সমূহের পাশাপাশি “মাদ্রাসা বোর্ডের এই ওয়েবসাইট www.ebmeb.gov.bd থেকে ও জানতে পারবেন। এতে করে আপনার সময়, শ্রম সবই বাঁচবে। আপনি খুব সহজেই Madrasah Education Board এর JDC Exam Result 2019 ডাউনলোড করতে চাইলে নিচের লিংকে ক্লিক করে পরবর্তী ধাপ অনুসরন করে আপনার ফলাফল সংগ্রহ করুন……………..

মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডের জেডিসি রেজাল্ট ২০১৯ অনলাইন থেকে জানতে এখানে ক্লিক করুন

JSC রেজাল্ট 2019 ও JDC রেজাল্ট 2019 গ্রেডিং পদ্ধতি:

প্রতি বিষয়ে যদি গড়ে 80-100 পান তাহলে আপনার পয়েন্ট হবে 5.00 গ্রেড হবে → A + এ প্লাস

প্রতি বিষয়ে যদি গড়ে 70-79 পান তাহলে আপনার পয়েন্ট হবে 4.00 গ্রেড হবে → A এ গ্রেড

প্রতি বিষয়ে যদি গড়ে 60-69 পান তাহলে আপনার পয়েন্ট হবে 3.50 গ্রেড হবে → A – এ মাইনাস

প্রতি বিষয়ে যদি গড়ে 50-59 পান তাহলে আপনার পয়েন্ট হবে 3.00 গ্রেড হবে → B গ্রেড

প্রতি বিষয়ে যদি গড়ে 40-49 পান তাহলে আপনার পয়েন্ট হবে 2.00 গ্রেড হবে → C গ্রেড

প্রতি বিষয়ে যদি গড়ে 33-39 পান তাহলে আপনার পয়েন্ট হবে 1.00 গ্রেড হবে → D গ্রেড

প্রতি বিষয়ে যদি গড়ে 0-32 পান তাহলে আপনার পয়েন্ট হবে 0.00 গ্রেড হবে → F গ্রেড

========================

“অনলাইন থেকে ফলাফল ডাউনলোড করার সকল সহজ উপায় বিস্তারিত সহকারে উপস্থাপ করেছি ,আলহামদুলিল্লাহ। এর পরেও যদি কোন সমস্যায় পড়েন তাহলে কমেন্টস করে জানান অথবা ফেসবুকে যোগাযোগ করুন। আর যদি মনে করেনপোষ্ট টি পড়ে অন্যেরাও উপকৃত হবে তাহলে দয়া করে শেয়ার করুন’ OurBD24.com এর সাথে থাকার জন্য ধন্যবাদ।।

All Education Board Information In Bangladesh, Powered by Wikipedia

ঢাকা বোর্ড সম্পর্কে:
মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, ঢাকা বাংলাদেশের ঢাকা বিভাগের মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোর নিয়ন্ত্রক কর্তৃপক্ষ হিসেবে কাজ করে। এই শিক্ষা বোর্ড ১৯২১ সালে বাংলাদেশের ঢাকা জেলায় প্রতিষ্ঠিত হয়। ঢাকার বকশিবাজার এলাকায় জয়নাগ সড়কে এর বর্তমান দাপ্তরিক ভবন অবস্থিত।

গঠন:
বোর্ডের অর্ডিন্যান্স অনুসারে, ঢাকা জেলার মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহের তদারকি, মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক স্তরের পাবলিক পরীক্ষাসমূহ পরিচালনা ও উন্নয়নের জন্যে ক্ষমতাপ্রাপ্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান; যা পূর্ব পাকিস্তান মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা অর্ডিন্যান্স ১৯৬১ (East Pakistan Ordinance No. XXXIII of 1961, Section 3A(1)) ও এর ১৯৬২ খ্রিস্টাব্দের ষোড়শ এবং ১৯৭৭ খ্রিস্টাব্দের সপ্তদশ সংশোধনী দ্বারা দ্বায়িত্বপ্রাপ্ত।

কার্যক্রম:
সনদপত্র উত্তোলন।
নম্বরপত্র উত্তোলন।
নাম সংশোধন।
যেকোন বিষয়ে ফলাফল সংশোধন।
ভর্তি বাতিল।
এক কলেজ থেকে ভর্তি বাতিল করে নতুন কলেজে ভর্তি প্রক্রিয়া সম্পন্ন করন।
সূত্র: উইকিপিডিয়া

চট্টগ্রাম বোর্ড সম্পর্কে:
মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, চট্টগ্রাম বাংলাদেশের চট্টগ্রাম বিভাগের মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গুলোর নিয়ন্ত্রক কর্তৃপক্ষ হিসেবে কাজ করে।[৪] এই শিক্ষা বোর্ড ১৯৯৫ সালে বাংলাদেশের চট্টগ্রাম জেলায় প্রতিষ্ঠিত হয়। চট্টগ্রামের পাঁচলাইশ থানার মুরাদপুর এলাকায় এর বর্তমান দাপ্তরিক ভবন অবস্থিত। ১লা জুলাই ১৯৯৫ সাল থেকে এর কার্যক্রম শুরু হয়।[১]

গঠন:
বোর্ডের অর্ডিন্যান্স অনুসারে, এটি চট্টগ্রাম, কক্সবাজার, রাঙ্গামাটি, খাগড়াছড়ি ও বান্দরবান জেলার মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহের তদারকি, মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক স্তরের সরকারি পরীক্ষাসমূহ পরিচালনা ও উন্নয়নের জন্যে ক্ষমতাপ্রাপ্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান; যা পূর্ব পাকিস্তান মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা অর্ডিন্যান্স ১৯৬১ (East Pakistan Ordinance No. XXXIII of 1961, Section 3A(1)) ও এর ১৯৬২ খ্রিস্টাব্দের ষোড়শ এবং ১৯৭৭ খ্রিস্টাব্দের সপ্তদশ সংশোধনী দ্বারা দায়িত্বপ্রাপ্ত।[৪]

পটভূমি:
চট্টগ্রাম মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড প্রতিষ্ঠিত হওয়ার পূর্বে চট্টগ্রাম ও চট্টগ্রাম পার্বত্য অঞ্চলের নিয়ন্ত্রণাভার ছিলো কুমিল্লা শিক্ষা বোর্ডের অধীনে।[১] বর্তমানে এই শিক্ষা বোর্ড চট্টগ্রাম অঞ্চলের পার্বত্য এলাকাসহ সর্বমোট ২১,৫৩১ বর্গ কিলোমিটার ভৌগোলিক এলাকার ১২৪ টি প্রাথমিক বিদ্যালয়, ৯৬১ টি মাধ্যমিক বিদ্যালয় এবং ১৯৫ টি মহাবিদ্যালয়সহ সর্বমোট ১২৮০ টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান পরিচালনার দায়িত্ব পালন করে।[১]

কার্যক্রম:
আওতাধীন মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলো পরিবীক্ষণ, পরিদর্শন তাদের শিক্ষাক্রমিক দূর্বলতা সনাক্তকরণ।
নবম ও একাদশ শ্রেণীর শিক্ষার্থীদের রেজিস্ট্রেশন কার্ড প্রস্তুতকরণ ও বিতরণ এবং জেএসসি, এসএসসি এবং এইচএসসি পরীক্ষা পরিচালনা।
প্রশ্নপত্র তৈরী, মূল্যায়ন, বিজি প্রেসের মাধ্যমে ছাপানো, ওআরএম কাগজসহ উত্তরপত্র বিতরণ।
পরীক্ষার খাতা মূল্যায়ন, নির্ধারিত সময়ের মধ্যে ফল প্রকাশ করে টেবুলেশন শিট, নম্বরপত্র ও সনদ প্রস্তুত এবং শিক্ষার্থীদের মাঝে বিতরণ।
সহ পাঠ্যক্রমিক কার্যক্রম পরিচালনা করা।
স্কুলের ম্যানেজিং কমিটি এবং কলেজের গভর্নিং বডি অনুমোদন দান এবং তাদের যেকোন বিরোধ নিষ্পত্তি করা।
মানসম্মত শিক্ষার জন্য শিক্ষকদের উৎসাহিত করা।
রেকর্ড সংরক্ষণ করা।
সূত্র: উইকিপিডিয়া

কুমিল্লা বোর্ড সম্পর্কে:
মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, কুমিল্লা বাংলাদেশের কুমিল্লা জেলার মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোর নিয়ন্ত্রক কর্তৃপক্ষ হিসেবে কাজ করে। এই শিক্ষা বোর্ড ১৯৬২ সালে বাংলাদেশের কুমিল্লা জেলায় প্রতিষ্ঠিত হয়। কুমিল্লা কান্দিরপাড়ের লাকসাম রোডে এর বর্তমান দাপ্তরিক ভবন অবস্থিত।

গঠন:
বোর্ডের অর্ডিন্যান্স অনুসারে এটি মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহের তদারকি, মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক স্তরের পাবলিক পরীক্ষাসমূহ পরিচালনা ও উন্নয়নের জন্য ক্ষমতাপ্রাপ্ত; যা পূর্ব পাকিস্তান মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা অর্ডিন্যান্স ১৯৬১ (East Pakistan Ordinance No. XXXIII of 1961) ও এর ১৯৬২ খ্রিস্টাব্দের ষোড়শ এবং ১৯৭৭ খ্রিস্টাব্দের সপ্তদশ সংশোধনী দ্বারা দ্বায়িত্বপ্রাপ্ত।

কার্যক্রম:
সনদপত্র উত্তোলন।[২]
নম্বরপত্র উত্তোলন।
নাম সংশোধন।
যেকোন বিষয়ে ফলাফল সংশোধন।
ভর্তি বাতিল।
এক কলেজ থেকে ভর্তি বাতিল করে নতুন কলেজে ভর্তি প্রক্রিয়া সম্পন্ন করন।

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহ:
কুমিল্লা বোর্ডের অধিনে বিশিষ্ট শিক্ষা প্রতিষ্ঠান সমূহ হচ্ছেঃ
কুমিল্লা জিলা স্কুল
সলিমগঞ্জ এ.আর.এম. উচ্চ বিদ্যালয়
কুমিল্লা ভিক্টোরিয়া কলেজ
নবাব ফয়জুন্নেছা সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়
কুমিল্লা ক্যাডেট কলেজ
লাকসাম পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়
কুমিল্লা মডার্ন হাই স্কুল
কোম্পানীগঞ্জ বদিউল আলম উচ্চ বিদ্যালয়
ব্রাহ্মণবাড়িয়া সরকারি কলেজ
ব্রাহ্মণবাড়িয়া সরকারি মহিলা কলেজ
অন্নদা সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়
ফেনী সরকারী কলেজ
ফেনী গার্লস ক্যাডেট কলেজ
ফেনী সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়
হাসান আলী সরকারী হাই স্কুল
নোয়াখালী জিলা স্কুল
দক্ষিন বল্লভপুর উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজ
সূত্র: উইকিপিডিয়া এবং কুমিল্লা বোর্ডের ওয়েবসাইট

দিনাজপুর বোর্ড সম্পর্কে:
মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, দিনাজপুর বাংলাদেশের রংপুর বিভাগের মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোর নিয়ন্ত্রক কর্তৃপক্ষ হিসেবে কাজ করে। এই শিক্ষা বোর্ড ২০০৬ সালে বাংলাদেশের দিনাজপুর জেলায় প্রতিষ্ঠিত হয়।

গঠন:
বোর্ডের অর্ডিন্যান্স অনুসারে, রংপুর বিভাগের মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহের তদারকি, মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক স্তরের পাবলিক পরীক্ষাসমূহ পরিচালনা ও উন্নয়নের জন্যে ক্ষমতাপ্রাপ্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান; যা পূর্ব পাকিস্তান মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা অর্ডিন্যান্স ১৯৬১ (East Pakistan Ordinance No. XXXIII of 1961, Section 3A(1)) ও এর ১৯৬২ খ্রিস্টাব্দের ষোড়শ এবং ১৯৭৭ খ্রিস্টাব্দের সপ্তদশ সংশোধনী দ্বারা দ্বায়িত্বপ্রাপ্ত।[২][৩] এই শিক্ষা বোর্ডের অধিনস্ত জেলাসমূহ হলোঃ দিনাজপুর জেলা, রংপুর জেলা, গাইবান্ধা জেলা, কুড়িগ্রাম জেলা, নীলফামারী জেলা, পঞ্চগড় জেলা, ঠাকুরগাঁও জেলা, লালমনিরহাট জেলা।

কার্যক্রম:
সনদপত্র উত্তোলন।
নম্বরপত্র উত্তোলন।
যেকোন বিষয়ে ফলাফল সংশোধন।
ভর্তি বাতিল।
এক কলেজ থেকে ভর্তি বাতিল করে নতুন কলেজে ভর্তি প্রক্রিয়া সম্পন্ন করন।

উল্লেখযোগ্য শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান:
দিনাজপুর শিক্ষাবোর্ডের অধীনে থাকা কিছু বিশিষ্ট শিক্ষা প্রতিষ্ঠানঃ
কারমাইকেল কলেজ, রংপুর
রংপুর সরকারি কলেজ
রংপুর ক্যাডেট কলেজ
রংপুর জিলা স্কুল
রংপুর সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়
ক্যান্টনমেন্ট পাবলিক স্কুল ও কলেজ, রংপুর
ক্যান্টনমেন্ট পাবলিক স্কুল ও কলেজ, সৈয়দপুর
দিনাজপুর জিলা স্কুল
দিনাজপুর সরকারি কলেজ
নীলফামারী সরকারি কলেজ
নীলফামারী সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়
নীলফামারী সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়
ডিমলা রাণী বিন্দা রাণী সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়
মকবুলার রহমান সরকারি কলেজ পঞ্চগড়
নৃপেন্দ্র নারায়ণ সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় দেবীগঞ্জ
ঠাকুরগাঁও সরকারি কলেজ
ঠাকুরগাঁও সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়
সালন্দর উচ্চ বিদ্যালয়
সূত্র: উইকিপিডিয়া এবং দিনাজপুর বোর্ডের ওয়েবসাইট

যশোর বোর্ড সম্পর্কে:
মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, যশোর বাংলাদেশের যশোর বিভাগের মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোর নিয়ন্ত্রক কর্তৃপক্ষ হিসেবে কাজ করে।[৪] এই শিক্ষা বোর্ড ১৯৬৫ সালে বাংলাদেশের যশোর জেলায় প্রতিষ্ঠিত হয়। যশোর সদর থানা এলাকায় এর বর্তমান দাপ্তরিক ভবন অবস্থিত।

গঠন:
বোর্ডের অর্ডিন্যান্স অনুসারে, এটি যশোর জেলার মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহের তদারকি, মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক স্তরের পাবলিক পরীক্ষাসমূহ পরিচালনা ও উন্নয়নের জন্যে ক্ষমতাপ্রাপ্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান; যা পূর্ব পাকিস্তান মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা অর্ডিন্যান্স ১৯৬১ (East Pakistan Ordinance No. XXXIII of 1961, Section 3A(1)) এবং পরবর্তীতে ৩০-০৯-১৯৬৯ তারিখে ৭২৬-শি নং সরকারী আদেশে ১৯৬৩ সালের অক্টোবর মাসে যশোর মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড স্থাপিত হয়।
সূত্র: উইকিপিডিয়া এবং যশোর বোর্ডের ওয়েবসাইট

রাজশাহী বোর্ড সম্পর্কে:
মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, রাজশাহী বাংলাদেশের রাজশাহী বিভাগের মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোর নিয়ন্ত্রক কর্তৃপক্ষ হিসেবে কাজ করে। এটি ১৯৬১ সালে প্রতিষ্ঠিত।

গঠন:
বোর্ডের অর্ডিন্যান্স অনুসারে, উত্তরাঞ্চলের মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহের তদারকি, মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক স্তরের এস. এস. সি এবং এইচ. এস. সি পরীক্ষা পরিচালনা ও উন্নয়নের জন্যে ক্ষমতাপ্রাপ্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান; যা পূর্ব পাকিস্তান মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা অর্ডিন্যান্স ১৯৬১ (East Pakistan Ordinance No. XXXIII of 1961, Section 3A(1)) ও এর ১৯৬২ খ্রিস্টাব্দের ষোড়শ এবং ১৯৭৭ খ্রিস্টাব্দের (XVII of 1977) সপ্তদশ সংশোধনী দ্বারা দ্বায়িত্বপ্রাপ্ত।[২] বর্তমানে এই বোর্ড-এর অন্তর্গত রয়েছে রাজশাহী, বগুড়া, পাবনা, জয়পুরহাট, নওগাঁ, নাটোর, চাঁপাই নবাবগঞ্জ ও সিরাজগঞ্জ জেলার শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান।

কার্যক্রম:
সনদপত্র উত্তোলন।
নম্বরপত্র উত্তোলন।
নাম সংশোধন।
যেকোন বিষয়ে ফলাফল সংশোধন।
ভর্তি বাতিল।
এক কলেজ থেকে ভর্তি বাতিল করে নতুন কলেজে ভর্তি প্রক্রিয়া সম্পন্ন করন।
সনদপত্র হারিয়ে গেলে উত্তোলনের প্রকিয়া।

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহ:
রাজশাহী শিক্ষা বোর্ডের অধিনে বিশিষ্ট শিক্ষা প্রতিষ্ঠান সমূহ হচ্ছেঃ
বানিয়াগাঁতি এস. এন. একাডেমী স্কুল এন্ড কলেজ বেলকুচি সিরাজগঞ্জ;
বেলকুচি কলেজ বেলকুচি সিরাজগঞ্জ;
সূত্র: উইকিপিডিয়া এবং যশোর বোর্ডের ওয়েবসাইট

সিলেট বোর্ড সম্পর্কে:
মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, সিলেট বাংলাদেশের সিলেট অঞ্চলের মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোর নিয়ন্ত্রক কর্তৃপক্ষ হিসেবে কাজ করে। সিলেট শিক্ষা বোর্ড ১৯৯৯ সালে প্রতিষ্ঠিত হয়।[১]

গঠন:
বোর্ডের অর্ডিন্যান্স অনুসারে এটি মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহের তদারকি, মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক স্তরের পাবলিক পরীক্ষাসমূহ পরিচালনা ও উন্নয়নের জন্য ক্ষমতাপ্রাপ্ত; যা পূর্ব পাকিস্তান মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা অর্ডিন্যান্স ১৯৬১ (East Pakistan Ordinance No. XXXIII of 1961) ও এর ১৯৬২ খ্রিস্টাব্দের ষোড়শ এবং ১৯৭৭ খ্রিস্টাব্দের সপ্তদশ সংশোধনী দ্বারা দ্বায়িত্বপ্রাপ্ত।[১]
সূত্র: উইকিপিডিয়া এবং যশোর বোর্ডের ওয়েবসাইট

বরিশাল বোর্ড সম্পর্কে:
মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, বরিশাল বাংলাদেশের বরিশাল বিভাগের মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোর নিয়ন্ত্রক কর্তৃপক্ষ হিসেবে কাজ করে।

গঠন:
বোর্ডের অর্ডিন্যান্স অনুসারে, উত্তরাঞ্চলের মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহের তদারকি, মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক স্তরের এস. এস. সি এবং এইচ. এস. সি পরীক্ষা পরিচালনা ও উন্নয়নের জন্যে ক্ষমতাপ্রাপ্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, যা ১৯৯৯ সালে সরকারী আদেশে (Barisal Education Board (SR and no 250 law -99) Branch -11/(1) 98- ISEO))প্রতিষ্ঠিত।[২] এটি ১৯৯৯ সালে কার্যক্রম শুরু করে। বর্তমানে এই বোর্ড-এর অন্তর্গত রয়েছে বরিশাল, পটুয়াখালী, ভোলা, পিরোজপুর, বরগুনা এবং ঝালকাঠি জেলার শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান।

কার্যক্রম:
সনদপত্র উত্তোলন।
নম্বরপত্র উত্তোলন।
নাম সংশোধন।
যেকোন বিষয়ে ফলাফল সংশোধন।
ভর্তি বাতিল।
এক কলেজ থেকে ভর্তি বাতিল করে নতুন কলেজে ভর্তি প্রক্রিয়া সম্পন্ন করন।
সূত্র: উইকিপিডিয়া এবং যশোর বোর্ডের ওয়েবসাইট

মাদ্রাসা বোর্ড সম্পর্কে:
বাংলাদেশ মাদরাসা শিক্ষা বোর্ড বাংলাদেশের মাদরাসা শিক্ষা পরিচালনার জন্য গঠিত বোর্ড। এটি ১৯৭৮ সালের মাদরাসা শিক্ষা অধ্যাদেশবলে স্থাপিত হয়। বাংলাদেশে মাদরাসা শিক্ষার আধুনিকীকরণ ও মানোন্নয়নের লক্ষ্যে এর কার্যক্রম পরিচালিত হয়। বাংলাদেশ সরকারের শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর দেশের সকল মাদরাসা পরিচালনা করে। একজন অধ্যক্ষের প্রত্যক্ষ তত্ত্বাবধানে উপাধ্যক্ষের সহযোগিতায় যাবতীয় একাডেমিক, প্রশাসনিক ও উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ড পরিচালিত হয়।

কারিকুলাম:
দাখিল ৬ষ্ঠ-৮ম
দাখিল জেনারেল
দাখিল Muzabbid
দাখিল বিজ্ঞান
দাখিল হিফযুল কুরাআন
দাখিল বিজনেস স্টাডিস
আলিম জেনারেল
আলিম Muzabbid
আলিম বিজ্ঞান
আলিম বিজনেস স্টাডিস

সূত্র: উইকিপিডিয়া এবং যশোর বোর্ডের ওয়েবসাইট

All Content Source: