আওয়ার বিডি ২৪: ইহুদিবাদী ইসরাইল সরকারের ‘এতজিওন’ নামক জেলে আটক ফিলিস্তিনি বন্দিরা নির্যাতনের স্বীকার সহ নানান দুর্বিসহ জীবন কাটাচ্ছেন বলে খবর প্রকাশ করেছে ফিলিস্তিনি বন্দি বিষয়ক মানব অধিকার পরিষদ সংস্থা – আল-আহ্‌দ। সংস্থাটির পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, চলমান প্রচণ্ড শীতের মাঝে গরম কাপড় ও অসুস্থদের ঔষধ সহ চিকিৎসা সামগ্রীর তীব্রতর অভাবে প্রচন্ড কষ্টের স্বীকার হচ্ছেন ফিলিস্তিনি বন্দিরা। শীতে থেকে রেহাই পাওয়ার জন্য তাদেরকে গরম কাপড় কিংবা কম্বল জাতীয় কোন উপকরন ই সরবরাহ করেনি ইহুদিবাদী ইসরাইলি কর্তৃপক্ষ।

ওই পরিষদ থেকে জানানো হয়েছে, ইহুদিবাদী ইসরাইলি কারা কর্তৃপক্ষ
তাদের পূর্ব পরিকল্পনামাফিক কারাগারে বন্দী ফিলিস্তিনিদের কষ্ট দেয়ার জন্যই এই অমানবিক ব্যবস্থা গ্রহন করেছে। এ ছাড়া, ফিলিস্তিনি বন্দীদেরকে প্রতিদির মারধর করাও হয় বলে জানিয়ে পরিষদের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, আন্তর্জাতিক সবধরনের বন্দী আইন ও ঘোষণা লঙ্ঘন করে এধরনে অমানবিক কাজ করে যাচ্ছে ইসরাইলি ইহুদিবাদীরা।

ফিলিস্তিনি বন্দী বিষয়ক চিকিৎসা কেন্দ্র থেকে জানানো হয়েছে, গত ২০১৮ সালে ইহুদিবাদী ইসরাইল সেনা পুলিশরা পাঁচ হাজার ৭০০ ফিলিস্তিনি জনগন কে আটক করে রেখেছে, যাদের মধ্যে ৯৮০জন ছোট শিশু ও ১৭৫ জন নারী রয়েছেন। এ ছাড়া, ২০১৮ সালকে ফিলিস্তিনি বন্দীদের জন্য ‘সবচেয়ে খারাপ বছর’ বলে সম্প্রতি এক প্রতিবেদনে উল্লেখ করে জানিয়েছে ফিলিস্তিনি বন্দী বিষয়ক মন্ত্রণালয় পক্ষ থেকে। এ বছরও নির্যাতিত  মজলুম এই জনগোষ্ঠীর বিরুদ্ধে গণগ্রেফতার অভিযান চালিয়েছে ইসরাইলি সেনা পুলিশ।

উৎস, পার্সটুডে